পর্ণহাবে রাশিয়ানদের প্রবেশাধিকার নিষিদ্ধের তথ্যটি মিথ্যা

সম্প্রতি, “পর্ণহাব ওদের ওয়েবসাইটে রাশিয়ানদের এ্যাকসেস ব্লক করে দিয়েছে” শীর্ষক শিরোনামে একটি তথ্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে।

Screenshot from Facebook Post

ফেসবুকে প্রচারিত এমন কিছু পোস্ট দেখুন এখানে, এখানে, এখানে এবং এখানে। আর্কাইভ ভার্সন দেখুন এখানে, এখানে, এখানেএবং এখানে। 

ফ্যাক্টচেক 

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে দেখা যায়, সাম্প্রতিক সময়ে রাশিয়া-ইউক্রেন সংঘাতকে কেন্দ্র করে পর্ণহাব কর্তৃপক্ষ তাদের ওয়েবসাইটে রাশিয়ানদের প্রবেশাধিকার নিষিদ্ধ করেনি বরং রাশিয়া ইউক্রেন সংঘাতকে কেন্দ্র করে কোনো নির্ভরযোগ্য তথ্যসূত্র ছাড়াই একটি ওয়েবসাইটে প্রকাশিত সংবাদ হতে উক্ত তথ্যটি সামাজিক মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে।

তথ্য যাচাই 

কি-ওয়ার্ড সার্চ পদ্ধতি ব্যবহার করে, dip.org.ua নামের ইউক্রেনভিত্তিক একটি ভূঁইফোড় ওয়েবসাইটে ‘Pornhub has blocked Russian access to its content’ শীর্ষক শিরোনামে প্রকাশিত প্রতিবেদন খুঁজে পাওয়া যায়। যেখানে পর্ণহাব কর্তৃপক্ষ কর্তৃক রাশিয়ান ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের জন্য পর্ণহাবে প্রবেশাধিকার নিষিদ্ধ করার তথ্যটি উল্লেখ করা হয়েছে। তবে উক্ত প্রতিবেদনে কোনো নির্ভরযোগ্য তথ্যসূত্র ব্যতীত উল্লেখ করা হয়েছে যে,

“বিশ্বের সবচেয়ে বিখ্যাত পর্ণ সাইট – পর্ণহাব তাদের ওয়েবসাইটে রাশিয়ান ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের প্রবেশাধিকার বন্ধ করে দিয়েছে। রাশিয়া থেকে তাদের সাইটে প্রবেশ করা যাবে না। রাশিয়ানরা যখন সাইটটিতে প্রবেশ করছেন তখন পর্ণ ভিডিওর পরিবর্তে ইউক্রেনের পতাকা লোড হচ্ছে এবং রাশিয়ান আগ্রাসনের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে ইউক্রেনীয় জনগণকে সমর্থন করার আহ্বানও দেখতে পাচ্ছেন তারা।”

Screenshot from DIP website

মূলত, “Bengali Sarcasm” নামের একটি Satire ফেসবুক পেজ থেকে dip.org.ua ওয়েবসাইটের আলোচিত প্রতিবেদনটির একটি স্ক্রিনশট প্রকাশ করা হয়। উক্ত পেজ হতে বিষয়টি প্রচারের পরবর্তীতে তথ্যটি কপি ও শেয়ার হওয়ার মাধ্যমে ঘটনাটি বাংলাদেশের ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের মাঝে ছড়িয়ে পড়ে।

এছাড়াও, ভিপিএন(ভার্চুয়াল প্রাইভেট নেটওয়ার্ক) এ রাশিয়ান প্রক্সি ব্যবহার করে পর্ণহাব সাইটটিতে প্রবেশ করা যাচ্ছে বলে এক টুইট বার্তায় বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম ‘Motherboard Vice’ এর রিপোর্টার ‘Samantha Cole’।

তাছাড়া, সামাজিক মাধ্যম টুইটারে একই তথ্যটি ছড়িয়ে পড়লে উক্ত বিষয়ে ফ্যাক্টচেকিং প্রতিষ্ঠান ‘স্নোপস’ একটি ফ্যাক্টচেক প্রতিবেদন প্রকাশ করে এবং প্রচারিত তথ্যটি নিয়ে প্রতিষ্ঠানটি পর্ণহাব এর মুখপাত্রের সাথে যোগাযোগ করে দাবিকৃত বিষয়টি মিথ্যা বলে নিশ্চিত করেছে।

পর্ণহাব
Screenshot from Snopes website

Also Read: রাশিয়াকে ঋণ পরিশোধে পাকিস্তানের অস্বীকৃতি জানানোর দাবিটি মিথ্যা

সাম্প্রতিক সময়ে আন্তর্জাতিক মূলধারার কোনো গণমাধ্যমে রাশিয়ানদের জন্য পর্ণহাব নিষিদ্ধ শীর্ষক কোন সংবাদ খুঁজে পাওয়া যায় নি। তবে ২০১৬ সালে রাশিয়ান সরকার কর্তৃক বিভিন্ন পর্ণ ওয়েবসাইটে নিষেধাজ্ঞা সংক্রান্ত একটি পুরোনো সংবাদ খুঁজে পাওয়া যায়।

সুতরাং, রাশিয়া ইউক্রেন সংঘাতকে কেন্দ্র করে কোনো নির্ভরযোগ্য তথ্য প্রমাণ ছাড়াই একটি ভূঁইফোড় সাইটে প্রকাশিত সংবাদকে সূত্র ধরে ‘পর্ণহাব কর্তৃপক্ষ তাদের ওয়েবসাইটে রাশিয়ানদের প্রবেশাধিকার নিষিদ্ধ করেছে’ শীর্ষক তথ্যটি সামাজিক মাধ্যমে প্রচার করা হচ্ছে; যা সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন এবং মিথ্যা।

[su_box title=”True or False” box_color=”#f30404″ radius=”0″]

  • Claim Review: পর্ণহাব ওদের ওয়েবসাইটে রাশিয়ানদের এ্যাকসেস ব্লক করে দিয়েছে
  • Claimed By: Facebook Posts
  • Fact Check: False

[/su_box]

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img