কালবেলা’র ফটোকার্ড নকল করে প্রধানমন্ত্রীর নামে ভুয়া তথ্য প্রচার

সম্প্রতি, জাতীয় দৈনিক ‘কালবেলা’র সূত্রে সরকারি ওয়েবসাইটে প্রধানমন্ত্রীর নামের পাশে ‘ভোট চোর’ শীর্ষক তথ্য বা শিরোনামে একটি ফটোকার্ড সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে প্রচার করা হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রীর

ফেসবুকে প্রচারিত এমন কিছু পোস্ট দেখুন এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ) এবং এখানে (আর্কাইভ)।

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে দেখা যায়, সরকারি ওয়েবসাইটে প্রধানমন্ত্রীর নামের পাশে ‘ভোট চোর’ শীর্ষক শিরোনামে দৈনিক কালবেলা কোনো ফটোকার্ড প্রকাশ করেনি এবং বাস্তবে এমন কোনো ঘটনাও ঘটেনি বরং গত ১৭ সেপ্টেম্বর কালবেলার ফেসবুক পেজে ‘সরকারি ওয়েবসাইটে চেয়ারম্যানের নামের পাশে ‘ভোট চোর’ শীর্ষক শিরোনামে প্রকাশিত ফটোকার্ডের শিরোনাম বিকৃত করে উক্ত ফটোকার্ডটি তৈরি করা হয়েছে।

অনুসন্ধানের শুরুতে কালবেলার আদলে তৈরি আলোচিত ফটোকার্ডটি পর্যবেক্ষণ করে রিউমর স্ক্যানার টিম। সেখানে এই সংবাদটি প্রচারের তারিখ উল্লেখ করা হয়েছে ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩।

Screenshot: Facebook

দাবিটির সত্যতা যাচাইয়ে ফটোকার্ডটিতে থাকা তারিখ এবং কালবেলার লোগোর সূত্র ধরে কালবেলার ভেরিফাইড ফেসবুক পেজে ১৭ সেপ্টেম্বর প্রচারিত ফটোকার্ডগুলো পর্যালোচনা করে উক্ত শিরোনাম বা তথ্য সম্বলিত কোনো ফটোকার্ড খুঁজে পাওয়া যায়নি। এছাড়াও কালবেলার ওয়েবসাইট কিংবা অন্যকোনো গণমাধ্যমেও উক্ত দাবিতে প্রচারিত কোনো সংবাদ পাওয়া যায়নি। 

তবে  একই দিনে কালবেলার ফেসবুক পেজে সরকারি ওয়েবসাইটে চেয়ারম্যানের নামের পাশে ‘ভোট চোর’ শীর্ষক শিরোনাম বা তথ্য সম্বলিত একটি ফটোকার্ড এবং এর কমেন্টে একই শিরোনামে প্রকাশিত একটি প্রতিবেদন খুঁজে পাওয়া যায়।

Screenshot: Facebook

প্রতিবেদন থেকে জানা যায়, গত ১৫ সেপ্টেম্বর রাতে স্থানীয় এক তথ্যপ্রত্যাশী জাতীয় তথ্য বাতায়নের লক্ষ্মীপুরের কমলনগর উপজেলার চরমার্টিন ইউনিয়ন পরিষদের অপশনে প্রবেশ করলে পরিষদের চেয়ারম্যানের নামের পাশে ‘ভোট চোর’ শব্দটি দেখতে পান। পরে তিনি তার নিজের ফেসবুক আইডিতে এ সংক্রান্ত একটি স্ট্যাটাস দিলে তা মুহূর্তের মধ্যে ভাইরাল হয়, যা নিয়ে বিভিন্ন মহলে সমালোচনার ঝড় ওঠে। 

অর্থাৎ, কালবেলার ফেসবুক পেজে ১৭ সেপ্টেম্বর প্রচারিত এই ফটোকার্ডটির শিরোনাম এবং ছবি এডিট করে তাতে ‘সরকারি ওয়েবসাইটে প্রধানমন্ত্রীর নামের পাশে ‘ভোট চোর’ শীর্ষক শিরোনাম ও প্রধানমন্ত্রীর ছবি যুক্ত করে আলোচিত ফটোকার্ডটি প্রচার করা হচ্ছে।

 Photocard Comparison by Rumor Scanner 

মূলত, গত ১৫ সেপ্টেম্বর লক্ষ্মীপুরের কমলনগরের  এক তথ্যপ্রত্যাশী জাতীয় তথ্য বাতায়নের উপজেলার চরমার্টিন ইউনিয়ন পরিষদের অপশনে প্রবেশ করলে পরিষদের চেয়ারম্যানের নামের পাশে ‘ভোট চোর’ শব্দটি দেখতে পান। পরে তিনি তার নিজের ফেসবুক আইডিতে উক্ত তথ্যটি জানিয়ে একটি স্ট্যাটাস দেন।এরই প্রেক্ষিতে ১৭ সেপ্টেম্বর দৈনিক পত্রিকা কালবেলার ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে ‘সরকারি ওয়েবসাইটে চেয়ারম্যানের নামের পাশে ভোট চোর’ শীর্ষক শিরোনামে একটি ফটোকার্ড প্রচারিত হয়। পরবর্তীতে ডিজিটাল প্রযুক্তির সহায়তায় উক্ত ফটোকার্ডের শিরোনাম এবং ছবি বিকৃতের মাধ্যমে ‘সরকারি ওয়েবসাইটে প্রধানমন্ত্রীর নামের পাশে ‘ভোট চোর’ শীর্ষক শিরোনামে কালবেলার ফটোকার্ড দাবিতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে প্রচার করা হয়।

উল্লেখ্য, পূর্বেও কালবেলাকে সূত্র উল্লেখ করে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের বিষয়ে ভুয়া তথ্য প্রচার করা হয় এবং তা নিয়েও ফ্যাক্টচেক প্রতিবেদন প্রকাশ করেছিল রিউমর স্ক্যানার। এমন তিনটি প্রতিবেদন দেখুন এখানে, এখানে এবং এখানে

সুতরাং, মূলধারার গণমাধ্যম কালবেলাকে উদ্ধৃত করে ‘সরকারি ওয়েবসাইটে প্রধানমন্ত্রীর নামের পাশে ‘ভোট চোর’ শীর্ষক দাবিতে ফেসবুকে প্রচারিত তথ্যটি মিথ্যা এবং উক্ত দাবিতে প্রচারিত ফটোকার্ডটি এডিটেড বা বিকৃত। 

তথ্যসূত্র

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img