বৃহস্পতিবার, মে 30, 2024
spot_img

বাংলাদেশ ভারত ম্যাচ নিয়ে শচীন টেন্ডুলকারের নামে প্রচারিত বক্তব্যটি ভুয়া

সম্প্রতি, টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে অনুষ্ঠিত বাংলাদেশ-ভারত ম্যাচকে কেন্দ্র করে ভারতের সাবেক ক্রিকেটার শচীন টেন্ডুলকারের বক্তব্য দাবিতে একটি তথ্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে।

যা দাবি করা হচ্ছে

গত ০২ নভেম্বর ফেসবুকে ‘Shawrick’ নামক একটি পেজ থেকে “Shocking statement by Former Indian legend Sachin Tendulkar” (আর্কাইভ) শিরোনামে প্রকাশিত একটি পোস্টে শচীন টেন্ডুলকারের বক্তব্য দাবিতে বলা হয়, “Things have never been like that, I love my team and cricket, but situations often seen in the past few matches of undue favour to team India is destroying the charm of gentlemen’s game. Well played Bangladesh”।

অর্থাৎ, উক্ত বক্তব্যের বাংলা অনুবাদ করলে দাঁড়ায়, “বিষয়গুলো কখনোই এমন ছিল না, আমি আমার দল এবং ক্রিকেটকে ভালবাসি, কিন্তু দেখা যাচ্ছে যে বিগত কয়েকটি ম্যাচে টিম ইন্ডিয়ার অনৈতিক সুবিধা নিচ্ছে খেলায়, যার কারণে ভদ্রলোকদের খেলার আকর্ষণ নষ্ট করে দিচ্ছে। ভাল খেলেছে বাংলাদেশ।”

ফেসবুকে প্রচারিত এমন কিছু পোস্ট দেখুন এখানে, এখানে এবং এখানে
পোস্টগুলোর আর্কাইভ ভার্সন দেখুন এখানে, এখানে এবং এখানে। 

বাংলা ভাষায় অনুদিত হয়েও উক্ত পোস্ট ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়তে দেখেছে রিউমর স্ক্যানার। 

ফেসবুকে প্রচারিত এমন কিছু পোস্ট দেখুন এখানে এবং এখানে।
পোস্টগুলোর আর্কাইভ ভার্সন দেখুন এখানে এবং এখানে।

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়আলোচিত বক্তব্যটি শচীন টেন্ডুলকার দেননি বরং কোনোরকম তথ্যসূত্র ছাড়াই উক্ত বক্তব্যটি তার নামে প্রচার করা হচ্ছে।

কি-ওয়ার্ড সার্চ পদ্ধতির মাধ্যমে ভারতীয় এবং আন্তর্জাতিক মূল ধারার কোনো গণমাধ্যমেই শচীন টেন্ডুলকারের উক্ত বক্তব্যটি খুঁজে পাওয়া যায়নি।

পরবর্তীতে গত ০২ নভেম্বর শচীন টেন্ডুলকারের অফিশিয়াল টুইটার অ্যাকাউন্টে বাংলাদেশ-ভারত ম্যাচ সংক্রান্ত একটি টুইট খুঁজে পাওয়া যায়। টুইটে শচীন লিখেছেন, “Well done Team India! Keep going strong.”

অর্থাৎ, বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যকার ম্যাচের বিষয়ে শচীন টেন্ডুলকার গত ০২ নভেম্বর তার টুইটার অ্যাকাউন্টে একটি টুইট করেন। কিন্তু সেই টুইটে তিনি ভালো খেলার জন্য ভারতের প্রশংসা করেন। উক্ত টুইটে আলোচিত ম্যাচটিতে ভারতের অনৈতিক সুবিধা নেওয়া এবং বাংলাদেশের ভালো খেলার প্রশংসা করে কোনো মন্তব্য করেননি শচীন।

উৎস-ই যখন ভুয়া বলছে

এডভান্সড সার্চ পদ্ধতির মাধ্যমে ‘Shawrick’ নামক পেজটি থেকে শচীনের নামে আলোচিত বক্তব্যটি প্রথম ছড়াতে দেখেছে রিউমর স্ক্যানার।

তবে পোস্ট প্রকাশিত হওয়ার কিছুক্ষণ পরই উক্ত পেজ থেকে দুইটি কমেন্ট করা হয়, প্রথম কমেন্টে বক্তব্যটির সূত্র হিসেবে উল্লেখ করা হয় ‘Haqeeqat TV’ কে।

কিন্তু ‘Haqeeqat TV’ এর ইউটিউব চ্যানেলে বাংলাদেশ ভারত ম্যাচ সংক্রান্ত গত ০২ নভেম্বর প্রকাশিত একটি ভিডিও প্রতিবেদন খুঁজে পাওয়া যায়। কিন্তু উক্ত ভিডিওতে শচীনের কোনো বক্তব্যের বিষয়ে বলা হয়নি।

পরবর্তীতে ‘Shawrick’ পেজটির উক্ত পোস্টে পেজ থেকে করা আরেকটি কমেন্টে বলা হয়, “নিজেরা স্ক্রিপ্টেড ম্যাচ বানাতে পারো, আমরা ফেক পোস্টও কি করতে পারবো না?”

অর্থাৎ, শচীনের নামে ছড়িয়ে পড়া বক্তব্যটি বানোয়াট ও ভুয়া।

মূলত, চলমান টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ম্যাচে গত ০২ নভেম্বর বাংলাদেশকে ‘ডিএলএস মেথডে’ ৫ রানে হারায় ভারত। উক্ত ম্যাচে ফেক ফিল্ডিং, মাঠ ভেজা থাকাসহ কয়েকটি ইস্যুতে ভারতের বিপক্ষে সমালোচনা চলছে। এর প্রেক্ষিতে ‘Shawrick’ নামক একটি পেজ থেকে শচীন টেন্ডুলকারের নামে উক্ত বক্তব্যটি প্রকাশিত হয়। একই পোস্টের কমেন্টে পেজ থেকে জানানো হয়, “এটি ফেক পোস্ট।” কিন্তু উক্ত পোস্টে প্রকাশিত বক্তব্যটি শচীন টেন্ডুলকার দিয়েছেন দাবিতে ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে।

উল্লেখ্য, চলমান টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের গ্রুপ পর্বের ম্যাচে গত ০২ নভেম্বর মুখোমুখি হয় বাংলাদেশ ও ভারত। বৃষ্টি আইনে উক্ত ম্যাচে ৫ রানে জয় পায় ভারত।

প্রসঙ্গত, চলমান টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ঘিরে একাধিক গুজব ছড়িয়ে পড়ার প্রেক্ষিতে একাধিক ফ্যাক্টচেক (এক, দুই, তিন) প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে রিউমর স্ক্যানার। 

সুতরাং, বাংলাদেশ ভারত ম্যাচ নিয়ে শচীন টেন্ডুলকারের নামে প্রচারিত বক্তব্যটি ভুয়া ও মিথ্যা।

তথ্যসূত্র

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img