বৃহস্পতিবার, মে 30, 2024
spot_img

খুতবারত অবস্থায় খতিবের মৃত্যু দাবিতে প্রচারিত ভিডিওটি অভিনয়ের মাধ্যমে চিত্রায়ণ করা

সম্প্রতি, “খতীব খুতবা দিতে দিতেই কালিমা পড়া অবস্থায় মারা গেলেন। আল্লাহ তাকে মাফ করুন।” শীর্ষক শিরোনামে একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক ছড়িয়ে পড়েছে।

ফেসবুকে প্রচারিত এমন কিছু পোস্ট দেখুন এখানে, এখানে ,এখানে এবং এখানে। পোস্টগুলোর আর্কাইভ ভার্সন দেখুন এখানে, এখানে ,এখানে এবং এখানে

ইউটিউবে প্রচারিত এমন কিছু পোস্ট দেখুন এখানে, এখানে এবং এখানে। আর্কাইভ দেখুন এখানে, এখানে এবং এখানে

টিকটকে প্রচারিত এমন কিছু পোস্ট দেখুন এখানে এবং এখানে । আর্কাইভ ভার্সন দেখুন এখানে এবং এখানে

@hjannat6349

খুতবা দেওয়া অবস্তায় মারা গেলেন,মুসলমান হলে অবশ্যই ভিডিও শেয়ার করবেন।

♬ original sound – anisha afrin

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়, ভিডিওটিতে থাকা ব্যাক্তি খুতবা দেওয়ার সময় মৃত্যুবরণ করেন নি বরং সেই ব্যাক্তি তার দেখা মিম্বরে খুতবা তিলওয়াতকালীন সময়ে মারা যাওয়া এক ব্যাক্তির ঘটনাকে অভিনয়ের মাধ্যমে চিত্রায়ণ করে ভিডিওটি তৈরি করেছেন। 

ভিডিওটির কিছু স্থিরচিত্র রিভার্স ইমেজ সার্চের মাধ্যমে, “معاذ ابوالحمد الازهرى (অনুবাদ- Moaz Abulhamd Al-Azhari)” নামের একটি ইউটিউব চ্যানেলে গত ২৮ মে “موت الخطيب وهو يخطب ويقول لا إله إلا الله (অনুবাদ – The death of the preacher while he was delivering a sermon saying there is no god but God)” শীর্ষক শিরোনামে প্রকাশিত মূল ভিডিওটি খুঁজে পাওয়া যায়।

উক্ত ভিডিওটির কমেন্ট সেকশনে তার আরবিতে করা একটি কমেন্ট পিন করেছেন যা গুগল ট্রান্সলেটর এর সাহায্যে অনুবাদ করলে হয়- 

“I hope you like this videoThe second episode of the greats of the universe. Watch the video to the end and you will know that I am in the body of a character who really died on the pulpit in this way.”

অর্থাৎ ভিডিওতে বর্ণনার পাশাপাশি তিনি এক পিন কমেন্টে জানাচ্ছেন, 

“ভিডিওটি শেষ পর্যন্ত দেখুন। তাহলে আপনি বুঝতে পারবেন যে আমি এমন একটি চরিত্রের মধ্যে আছি যে সত্যিই এইভাবে মিম্বরে মারা গিয়েছিল।”

পরবর্তীতে ইউটিউব ভিডিওটির সূত্র ধরে কি-ওয়ার্ড সার্চ পদ্ধতিতে, আলোচিত ভিডিওতে থাকা ঐ ব্যক্তির ফেসবুক অ্যাকাউন্টে আজ ৩০ মে প্রকাশিত একটি ফেসবুক পোস্ট (আর্কাইভ এখানে) খুঁজে পাওয়া যায়।

খুতবা

আরবিতে ভাষায় লেখা সেই পোস্টকে গুগলের সহযোগিতায় ইংরেজিতে অনুবাদ করলে পাওয়া যায়, 

“Guys, I am fine by God, and I thank everyone who asked me. but the video on social media is part of an episode of a program that I present every week on my YouTube channel, and I was talking about a person who died in front of me like this on the pulpit. I said on my channel that I am talking about this person and I hope that People think best before speaking. Inshallah,I will come up with a video in which I will talk about this matter. God bless you.”

অর্থাৎ, ভিডিওটি ভিন্ন দাবিতে ছড়িয়ে পড়লে এক ফেসবুক পোস্টে তিনি ভালো আছেন বলে নিশ্চিত করে জানিয়েছেন,  

ভিডিওটি একটি অনুষ্ঠানের একটি পর্বের অংশ যা আমি প্রতি সপ্তাহে আমার ইউটিউব চ্যানেলে প্রকাশ করি। এখানে আমি এমন একজন ব্যক্তির কথা বলেছি যে আমার সামনে মিম্বরে এভাবে মারা গিয়েছিল। আমি আমার চ্যানেলে বলেছিলাম যে আমি সেই ব্যক্তির কথা বলছি এবং আমি আশা করব যে লোকেরা বলার আগে ভালোভাবে চিন্তা করবে। ইনশাআল্লাহ, আমি একটি ভিডিও নিয়ে আসব যাতে আমি এই বিষয়ে কথা বলব।”

অর্থাৎ তিনি তার নিজ চোখে দেখা মসজিদের মিম্বরে খুতবারত অবস্থায় মারা যাওয়া এক ব্যক্তির ঘটনা নিয়ে ভিডিওটি তৈরি করেছিলেন। 

Also Read: কুরআন তেলওয়াত শুনে ভারতীয় তারকাদের কান্না দাবিতে প্রচারিত ভিডিওগুলো এডিটেড

গুজবের সূত্রপাত 

মিশরের Moaz Abulhamd Al-Azhari নামের সেই কন্টেন্ট নির্মাতা ইউটিউবে বিস্তারিত ভিডিও প্রকাশ করলেও তার টিকটক আইডিতে কেবল মিম্বরে দাঁড়িয়ে খুতবারত অবস্থায় মারা যাওয়ার দৃশ্যের চিত্রায়ণটুকু প্রচার করলে বিষয়টি দ্রুতই ভাইরাল হয়ে যায়। যার ফলে অভিনয় করে নির্মাণ করা ভিডিওটিতে খুতবারত অবস্থায় মারা যাওয়ার ভিডিওটিকে আসল ভিডিও হিসেবে ছড়িয়ে পড়ে। এখন পর্যন্ত তার টিকটকে আপলোড করা ভিডিওটিতে ১০ লক্ষেরও বেশি ভিউ হয়েছে।

মূলত, মিশরের Moaz Abulhamd Al-Azhari নামের এক ভিডিও নির্মাতা তার দেখা মিম্বরে খুতবারত অবস্থায় এক ব্যক্তির মারা যাওয়ার ঘটনা নিয়ে ভিডিও নির্মাণের পাশাপাশি উক্ত মারা যাওয়ার ঘটনাটি অভিনয়ের মাধ্যমে চিত্রায়ণ করে তার ইউটিউব চ্যানেলের এক নিয়মিত আয়োজনের দ্বিতীয় এপিসোড হিসেবে প্রচার করেন। তবে সেই ব্যক্তি তার টিকটক আইডিতে সম্পূর্ণ ভিডিও প্রকাশ না করে কেবল মারা যাওয়ার অভিনয়ের চিত্রায়ণ করা অংশটুকু প্রকাশ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তা বিভ্রান্তিকর ভাবে ছড়িয়ে পড়ে।

সুতরাং, খতিব খুতবা দিতে দিতেই কালিমা পড়া অবস্থায় মারা গেছেন শীর্ষক দবিতে প্রচারিত ভিডিওটি অভিনয়ের মাধ্যমে চিত্রায়ণ করা এবং ভিডিওর ব্যক্তিটি মারা গিয়েছেন শীর্ষক দাবিটি মিথ্যা

তথ্যসূত্র

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img