শনিবার, এপ্রিল 13, 2024
spot_img

মরগান ফ্রিম্যান কর্তৃক ইসলাম গ্রহণের ঘোষণা দেওয়ার দাবিটি মিথ্যা

সম্প্রতি “ব্রেকিং। বিশ্বকাপের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে কুরআন পাঠের সময় ঘানেম মুফতিহর সাথে অংশ নেওয়া মরগান ফ্রিম্যান ইসলাম গ্রহণ করার ঘোষণা দিয়েছেন। তার মতো একজন মহান অভিনেতার ইসলাম গ্রহণ বিশ্বকে চমকিয়ে দিবে ইনশাআল্লাহ।” শীর্ষক একটি তথ্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে।

ফেসবুকে প্রচারিত এমন কিছু পোস্ট দেখুন এখানে, এখানে, এখানে, এখানে এবং এখানে

পোস্টগুলোর আর্কাইভ ভার্সন দেখুন এখানে, এখানে, এখানে, এখানে এবং এখানে

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে দেখা যায়, আমেরিকার কিংবদন্তি অভিনেতা মরগান ফ্রিম্যান ইসলাম গ্রহণ করার ঘোষণা দেননি বরং কোনো প্রকার নির্ভরযোগ্য তথ্যসূত্র ছাড়াই তথ্যটি প্রচার করা হচ্ছে।

গুজবের সূত্রপাত

মাইক্রোব্লগিং সাইট টুইটারে “Zakir Naik” নামের একটি ফেইক একাউন্ট গত ২০ নভেম্বর রাত ১০ টা ২২ মিনিটে মরগান ফ্রিম্যানের ছবিসহ একটি টুইট করা হয়। টুইটে উল্লেখ করা হয় “মরগান ফ্রিম্যান ইসলাম গ্রহণের ঘোষণা দিয়েছেন (অনুবাদিত)।” পরবর্তীতে এই টুইটটি বিভিন্ন ভাষায় অনুবাদিত হয়ে সামাজিক যোগাযগ মাধ্যমগুলোতে ছড়িয়ে পড়ে। এরকম আরও কিছু টুইট দেখুন এখানে এবং এখানে। এছাড়াও বাংলাদেশে একটি টুইটের স্ক্রিনশটও ছড়িয়ে পড়ে। টুইটটি দেখুন এখানে

কি-ওয়ার্ড সার্চ পদ্ধতি ব্যবহার করে, দেশীয় এবং বিদেশী সংবাদ মাধ্যমে এই বিষয়ে কোনো তথ্য পাওয়া যায়নি।

পাশাপাশি, মরগান ফ্রিম্যানের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম প্রোফাইলেও এরকম কোনো তথ্য পাওয়া যায়নি।

এছাড়াও, যেই টুইটার একাউন্ট থেকে প্রথম গুজবটি ছড়ানো হয়েছিল সেই একই একাউন্ট থেকে গুজব ছড়ানোর পরদিন গত ২১শে নভেম্বর রাত ৮ টা ৪৩ মিনিটে একটি টুইট করে জানানো হয় মরগান ফ্রিম্যানের ইসলাম গ্রহণের তথ্যটি মিথ্যা। টুইটে উল্লেখ করা হয়, “তথ্যটি মিথ্যা, তবে আমরা কাজ করছি (অনুবাদিত)”।

মূলত, গত ২০ নভেম্বর আল বাইত স্টেডিয়ামে হওয়া কাতার বিশ্বকাপের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এরপরে আরবি ভাষার গানের ছন্দের মাঝেই হাজির হন হলিউডের কিংবদন্তি অভিনেতা মরগান ফ্রিম্যান। ফ্রিম্যান এর সাথে একই মঞ্চে থাকা ঘানিম আল মুফতাহ’ কুরআনের সূরা ‘আল হুজুরাত’ এর ১৩ নাম্বার আয়াত তেলাওয়াত করেন। এই দিন রাতে টুইটারে জাকির নায়েক নামে একটি ফেক প্রোফাইল থেকে “মরগান ফ্রিম্যান ইসলাম গ্রহণ করার ঘোষণা দিয়েছেন” দাবিতে আরবিতে একটি টুইট করা হয়। পরবর্তীতে এই টুইটটি অনুবাদিত হয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। অনুসন্ধানে এজাতীয় তথ্যের সত্যতা পাওয়া যায়নি। যে প্রোফাইল থেকে গুজবটি ছড়ানো হয়েছিল তারাও পরে বিষয়টিকে গুজব বলে পুনরায় টুইট করেছে।

উল্লেখ্য, এর আগেও ২০১৫ সালে মরগান ফ্রিম্যানের ইসলাম গ্রহণের ঘোষণার বিষয়ে একটি তথ্য ছড়িয়ে পড়েছিল। এছাড়াও, ২০১৬ সালে ন্যাশনাল জিওগ্রাফিতে প্রচারিত একটিই টেলিভিশন ডকুমেন্টারি The Story of God with Morgan Freeman এর জন্য বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে বিভিন্ন ধর্মের উৎস এবং রীতি-নীতি দেখেছেন তিনি। সব ধর্ম সম্পর্কে জানার পর মরগান ফ্রিম্যান এক সাক্ষাতকারে বলেছিলেন, “জন্মসূত্রে পাওয়া খৃষ্টান ধর্ম ত্যাগ করে আমি এখন জরাথ্রুস্টবাদ ধর্মের অনুসারী।  আমেরিকায় আমার বাড়ির নিকটবর্তী ওই ধর্মের উপাসনালয়ে আমি  নিয়মিত যাচ্ছি।”

প্রসঙ্গত,  জর্ডানের ফ্যাক্ট-চেকিং সাইট “Misbar” মরগান ফ্রিম্যানের ইসলাম ধর্ম গ্রহণের ঘোষণার বিষয়টি মিথ্যা হিসেবে শনাক্ত করে প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। 

সুতরাং, কোনো প্রকার গ্রহণযোগ্য তথ্যসূত্র ছাড়াই দাবি করা হচ্ছে যে মরগান ফ্রিম্যান ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করার ঘোষণা দিয়েছেন; যা সম্পূর্ণ মিথ্যা।

তথ্যসূত্র

 

RS Team
RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img