শনিবার, জুলাই 20, 2024
spot_img

রংপুরের মিঠাপুকুরে হিট স্ট্রোকে শিক্ষকের মৃত্যুর ঘটনাটি গত বছরের

বর্তমানে দেশজুড়ে চলছে তীব্র দাবদাহ, যার ফলে মারাত্মক গরম এবং উষ্ণতার প্রভাব পড়েছে সর্বত্র। এই অসহনীয় গরমের কারণে, আবহাওয়া অফিস দেশব্যাপী হিট অ্যালার্ট জারি করেছে। অত্যধিক গরমের কারণে লোকজন নানারকম শারীরিক অসুবিধায় ভুগছেন। প্রচণ্ড গরমের কারণে দেশের অনেক স্থানে হিট স্ট্রোকে আক্রান্ত হয়ে কয়েকজনের মৃত্যুর খবর প্রকাশিত হয়েছে গণমাধ্যমগুলোতে।

এই প্রেক্ষাপটে সম্প্রতি, মিঠাপুকুরে হিট স্ট্রোকে শিক্ষকের মৃত্যু শীর্ষক শিরোনামে প্রকাশিত একটি সংবাদের স্ক্রিনশট ইন্টারনেটে প্রচার করা হয়েছে।

হিট স্ট্রোকে

উক্ত দাবিতে ফেসবুকে প্রচারিত পোস্ট দেখুন এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ)।

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়, রংপুরের মিঠাপুকুরে হিট স্ট্রোকে শিক্ষকের মৃত্যুর সংবাদটি সাম্প্রতিক সময়ের নয় বরং গত বছরের।

উক্ত ঘটনার সত্যতা জানার জন্য প্রচারিত সংবাদের শিরোনাম কি-ওয়ার্ড সার্চ করে জাতীয় দৈনিক সমকাল এর ওয়েবসাইটে ২০২৩ সালের ৮ জুন প্রকাশিত মূল সংবাদ প্রতিবেদনটি খুঁজে পাওয়া যায়।

উক্ত প্রতিবেদনে সংযুক্ত ছবির সাথে আলোচিত দাবিতে প্রচারিত স্ক্রিনশটের ছবির সাদৃশ্য খুঁজে পাওয়া যায়।

Screenshot Comparison: Rumor Scanner

উক্ত প্রতিবেদন থেকে জানা যায়, ২০২৩ সালের ৭ জুন তীব্র গরমে স্ট্রোক করে ফারিজুল ইসলাম নামের এক শিক্ষকের মৃত্যু হয়। তিনি মিঠাপুকুর উপজেলার চেংমারী ইউনিয়নের গিলাঝুঁকি গ্রামের বাসিন্দা এবং কোমরপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক ছিলেন।

গত বছরের ৮ জুন সমকাল তাদের ফেসবুক পেজেও সংবাদটি প্রচার করে।

এছাড়া অন্যান্য গণমাধ্যমেও সেসময় এই সংবাদটি প্রকাশ করা হয়েছিল।

মূলত, ২০২৩ সালের ৭ জুন তীব্র গরমে স্ট্রোক করে রংপুরের মিঠাপুকুর উপজেলার চেংমারী ইউনিয়নের গিলাঝুঁকি গ্রামের বাসিন্দা এবং কোমরপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক ফারিজুল ইসলাম নামের এক ব্যক্তির মৃত্যু হয়। সে সময় উক্ত ঘটনা নিয়ে দেশের জাতীয় দৈনিক সমকালের ওয়েবসাইটে একটি প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। সম্প্রতি, সেই প্রতিবেদনেরই একটি স্ক্রিনশট সাম্প্রতিক ঘটনা দাবিতে ইন্টারনেটে প্রচার করা হচ্ছে।

সুতরাং, ২০২৩ সালে তীব্র গরমে স্ট্রোক করে মিঠাপুকুর উপজেলার এক সহকারী শিক্ষকের মৃত্যুর সংবাদ সাম্প্রতিক দাবিতে ইন্টারনেটে প্রচার করা হয়েছে; যা বিভ্রান্তিকর।

তথ্যসূত্র

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img