গুচ্ছতে আর্টস-কমার্স থেকে পরীক্ষা দিয়ে প্রকৌশল বিষয়ে পড়তে পারার দাবিটি মিথ্যা

সম্প্রতি “শিক্ষার্থীদের সুবিধার্থে গুচ্ছে আর্টস এবং কমার্স  থেকে বি ও সি ইউনিটে পরিক্ষা দিয়েও CSE,EEE সহ ইঞ্জিনিয়ারিং সকল সাবজেক্ট  নিয়ে পড়া যাবে বলে নিশ্চিত করেছেন গুচ্ছ কমিটি. 6 আগস্ট শনিবার বিকালে এ সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। Rf:The Daily campus” শীর্ষক শিরোনামে একটি তথ্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে। 

ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়া এমন কিছু পোস্ট দেখুন এখানে, এখানে, এখানে, এখানে এবং এখানে। পোস্টগুলোর আর্কাইভ ভার্সন দেখুন এখানে, এখানে, এখানে, এখানে এবং এখানে

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে দেখা যায়, শিক্ষার্থীদের সুবিধার্থে গুচ্ছে আর্টস এবং কমার্স থেকে বি ও সি ইউনিটে পরীক্ষা দিয়েও সিএসই, ইইই সহ প্রকৌশলের সকল বিষয়ে পড়তে পারার দাবিটি সত্য নয় বরং গুচ্ছ কমিটি থেকে এই ধরনের কোনো সিদ্ধান্ত নেওয়ার তথ্য খুঁজে পাওয়া যায়নি।

কি-ওয়ার্ড অনুসন্ধানের মাধ্যমে অনলাইন গণমাধ্যম The Daily Campus এ ৬ আগস্ট “ম্যাথ না দাগিয়ে ইঞ্জিনিয়ারিং— সিদ্ধান্ত নেবে স্ব স্ব বিশ্ববিদ্যালয়” শীর্ষক শিরোনামে প্রচারিত একটি প্রতিবেদন খুঁজে পাওয়া যায়।

প্রতিবেদনটিতে গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা আয়োজক কমিটির যুগ্ম আহবায়ক ও জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. ইমদাদুল হককে উদ্ধৃত করে গণমাধ্যমটি  জানায়, “গুচ্ছভুক্ত ২২ বিশ্ববিদ্যালয়ে ম্যাথ না দাগিয়ে ইঞ্জিনিয়ারিং বিষয়ে পড়ার বিষয়ে নিজ নিজ বিশ্ববিদ্যালয় সিদ্ধান্ত নেবে। এ বিষয়ে গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা আয়োজক কমিটি কোনো হস্তক্ষেপ করবে না।”

এছাড়া উক্ত প্রতিবেদনটিতে, গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা আয়োজক কমিটির যুগ্ম আহবায়ক ও জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. ইমদাদুল হক আরও বলেন, ” ভর্তি পরীক্ষায় কোন বিষয়ে উত্তর করতে হবে আর কোন বিষয়ে উত্তর করতে হবে না সেটি আমরা ওএমআর শিটে স্পষ্টভাবে উল্লেখ করে দিয়েছি। এখন কোনো বিশ্ববিদ্যালয় যদি মনে করে ম্যাথের উত্তর না করলেও তাদের বিশ্ববিদ্যালয়ে ইঞ্জিনিয়ারিং বিষয় নিয়ে পড়া যাবে তাহলে সেটি তাদের নিজেদের ব্যাপার। এ বিষয়ে আমরা কোনো হস্তক্ষেপ করবো না।”

পরবর্তীতে গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষার মূল ওয়েবসাইটে খুঁজেও এ ধরনের কোনো সিদ্ধান্তের বিষয়ে তথ্য পাওয়া যায়নি।

এছাড়া ওয়েবসাইটটি থেকে ২০২১-২২ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি নির্দেশিকা অনুসন্ধান করে দেখা যায়, বিজ্ঞান, মানবিক ও বাণিজ্য শাখা হতে এইচএসসি/সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীরা নির্ধারিত যোগ্যতা সাপেক্ষে যথাক্রমে ইউনিট- A ইউনিট-B ও ইউনিট-C-তে আবেদন করতে পারবে। এক্ষেত্রে ইউনিট- A বিজ্ঞান শাখা, ইউনিট- B মানবিক শাখা ও  ইউনিট- C বানিজ্য শাখা হিসেবে বিবেচিত হবে।

ইউনিট- A অর্থ্যাৎ বিজ্ঞান শাখার জন্য আবেদনের যোগ্যতা হিসেবে এইচএসসি/সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণ আবেদনকারীদের এসএসসি/সমমান ও এইচএসসি/সমমান উভয় পরীক্ষায়। (৪র্থ বিষয়সহ) ন্যূনতম জিপিএ ৩.৫০ সহ সর্বমোট জিপিএ কমপক্ষে ৮.০০ থাকতে হবে। সাধারণ শিক্ষা বোর্ডের বিজ্ঞান শাখাসহ মাদ্রাসা বোর্ড (বিজ্ঞান) এবং ভোকেশনাল (এইচএসসি) বিজ্ঞান শাখা হিসাবে বিবেচিত হবে। অর্থ্যাৎ মানবিক ও বিজ্ঞান শাখার শিক্ষার্থীদের এই ইউনিটে ভর্তি পরীক্ষা দেওয়ার কোনো সুযোগ নেই। 

গুচ্ছে আর্টস এবং কমার্স থেকে বি ও সি ইউনিটে পরীক্ষা দিয়েও সিএসই, ইইই সকল প্রকৌশল বিষয়ে পড়তে পারার দাবিটির সত্যতা যাচাইয়ে গুচ্ছভুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়সমূহের সমন্বিত ভর্তি কমিটির (২০২১-২০২২) সচিব ও জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার  প্রকৌশলী মো: ওহিদুজ্জামানের সঙ্গে রিউমর স্ক্যানার থেকে যোগাযোগ করা হয়। 

তিনি রিউমর স্ক্যানারকে বলেন, “এমন কিছু সম্পর্কে আমার জানা নেই।

এছাড়া গুচ্ছে আর্টস এবং কমার্স থেকে বি ও সি ইউনিটে পরীক্ষা দিয়েও সিএসই, ইইই সকল প্রকৌশল বিষয়ে পড়তে পারার দাবি সম্পর্কিত পোস্টগুলোতে অনলাইন গণমাধ্যম The Daily Campus কে সূত্র হিসেবে ব্যবহার করলেও গণমাধ্যমটিতে এই ধরনের কোনো সংবাদ খুঁজে পাওয়া যায়নি। 

মূলত, ভুয়া সূত্র ব্যবহার করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে গুচ্ছে আর্টস এবং কমার্স থেকে বি ও সি ইউনিটে পরীক্ষা দিয়েও সিএসই, ইইই সকল প্রকৌশল বিষয়ে পড়তে পারার একটি দাবি ছড়িয়ে পড়ে। এছাড়া গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা সংক্রান্ত দায়িত্বশীল ব্যক্তির সঙ্গে যোগাযোগ, গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষার ওয়েবসাইট এবং গণমাধ্যম অনুসন্ধান করেও এই দাবির পক্ষে কোনো সত্যতা খুঁজে পাওয়া যায়নি।

সুতরাং, গুচ্ছে আর্টস এবং কমার্স থেকে বি ও সি ইউনিটে পরীক্ষা দিয়েও সিএসই, ইইই সকল প্রকৌশল বিষয়ে পড়তে পারার দাবিটি সম্পূর্ণ গুজব। 

তথ্যসূত্র

The Daily Campus: ম্যাথ না দাগিয়ে ইঞ্জিনিয়ারিং— সিদ্ধান্ত নেবে স্ব স্ব বিশ্ববিদ্যালয়

GST Admission Website: https://gstadmission.ac.bd/

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img