শেখ হাসিনা বিশ্বের নিকৃষ্ট শাসক নির্বাচিত হওয়ার দাবিটি বানোয়াট

সম্প্রতি,‘বাংলাদেশের বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পৃথিবীর সবচেয়ে নিকৃষ্ট প্রধানমন্ত্রী’ শীর্ষক দাবিতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে একটি ভিডিও প্রচার করা হচ্ছে।

ফেসবুকে প্রচারিত এমন কিছু ভিডিও দেখুন এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ),  এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ)।

প্রচারিত ভিডিওতে যা দাবি করা হচ্ছে

সবচেয়ে নিকৃষ্ট শাসক হিসেবে প্রথম হয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সম্প্রতি সিঙ্গাপুরভিত্তিক আন্তর্জাতিক গবেষণা সংস্থা স্ট্যাটিসটিকস ইন্টারন্যাশনাল শেখ হাসিনা বিশ্বের সবচেয়ে নিকৃষ্ট শাসক বিবেচিত হয়েছে। দ্বিতীয় হয়েছেন যুদ্ধবিধ্বস্ত সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট, বাশার আল-আসাদ এবং তৃতীয় নর্থ কোরিয়ার প্রেসিডেন্ট কিমজং উন। 

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে দেখা যায়, নিকৃষ্ট স্বৈরশাসক/ নিকৃষ্ট শাসক/ একশত বছরে বিশ্বের সবচেয়ে নিকৃষ্ট পাঁচজন সরকার প্রধান দাবিতে প্রচারিত তথ্যগুলো সঠিক নয় বরং অনির্ভরযোগ্য কিছু ওয়েবসাইটের জরিপের বরাতে করা ভূইফোঁড় অনলাইন পোর্টালের সংবাদের সূত্রে ধরে উক্ত তথ্যগুলো দীর্ঘদিন ধরে ইন্টারনেটে প্রচার হয়ে আসছে।

মূলত, অস্তিত্বহীন কিছু সাইট ও দি টপটেনস.কম (thetoptens.com) নামের একটি সামাজিক যোগাযোগ সাইটের জরিপকে কেন্দ্র করে ২০১৮ সালে সর্বপ্রথম সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে কিছু অখ্যাত অনলাইন পোর্টালে নিকৃষ্ট স্বৈরশাসক/ নিকৃষ্ট শাসক/ একশত বছরে বিশ্বের সবচেয়ে নিকৃষ্ট পাঁচজন সরকার প্রধান দাবিতে সংবাদ প্রচার করা হয়। ফলে কেউ যখন এসব  কি-ওয়ার্ড ধরে গুগলে অনুসন্ধান করে তখন গুগল তার ডাটাবেইজ থেকে স্বয়ংক্রিয়ভাবে এসব কি-ওয়ার্ড সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন ওয়েবসাইটের প্রকাশিত প্রতিবেদনগুলোকে ফলাফল হিসেবে অনুসন্ধানকারীর সামনে উপস্থাপন করে। রিউমর স্ক্যানারের অনুসন্ধানে দেখা যায়, এসব ফলাফলকেই ফেসবুকে দীর্ঘদিন ধরে নিকৃষ্ট প্রধানমন্ত্রী লিখে Google-এ অনুসন্ধান করলে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছবি প্রদর্শিত হওয়ার দাবিতে প্রচার করা হচ্ছে৷

পূর্বেও একই দাবিতে ছবিটি প্রচার করা হলে বিষয়টি নিয়ে ফ্যাক্টচেক প্রতিবেদন প্রকাশ করে রিউমর স্ক্যানার। 

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img