সোমবার, জুলাই 22, 2024
spot_img

গাজার নয়, শিশুকে জড়িয়ে ধরে যুবকের কান্না করার দৃশ্যটি সিরিয়ার 

সম্প্রতি, একটি শিশুকে কোলে নিয়ে এক ব্যক্তির কান্না করার ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে। 

দাবি করা হচ্ছে, উত্তর গাজায় এক যুবক তার ছোট মেয়ের জন্য ফুঁপিয়ে কাঁদছে। শিশুটি এই অঞ্চলে চলমান ইসরায়েলি অবরোধের মধ্যে ক্ষুধা ও অপুষ্টতে মৃত্যুর ঝুঁকিতে রয়েছে। 

শিশুকে জড়িয়ে

ফেসবুকে প্রচারিত এমন কিছু পোস্ট দেখুন এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ) এবং এখানে (আর্কাইভ)।

ইনস্টাগ্রামে প্রচারিত পোস্ট দেখুন এখানে (আর্কাইভ)। 

এক্স (সাবেক টুইটার) এ প্রচারিত পোস্ট দেখুন এখানে (আর্কাইভ)। 

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়, শিশুকে কোলে নিয়ে যুবকের কান্না করার ভাইরাল ভিডিওটি  ফিলিস্তিনের গাজার নয়,বরং এটি সিরিয়ার দৃশ্য।

অনুসন্ধানে শর্ট ভিডিও শেয়ারিং প্লাটফর্ম টিকটকে “muhamad_ulid_alasmd1” নামক অ্যাকাউন্টে গত ১১ জুন একটি ভিডিও পোস্ট (আর্কাইভ) খুঁজে পাওয়া যায়।  

উক্ত ভিডিওটির সাথে আলোচিত ভিডিওটির হুবহু মিল রয়েছে। 

Video Comparison By Rumor Scanner

 টিকটক অ্যাকাউন্টটি পর্যবেক্ষণ করে জানা যায়, মুহাম্মদ ওয়ালিদ আল আসওয়াদ সিরিয়ান নাগরিক। তিনি উত্তর সিরিয়ার সেচ্ছাসেবায় নিয়োজিত। তাদের লক্ষ শিশুদের (বিশেষ করে ক্যান্সার রোগী, প্রতিবন্ধী এবং এতিম) কথা জানানো।

Screenshot: Tiktok 

অনুসন্ধানে একই অ্যাকাউন্ট থেকে গত ১০ জুন উক্ত শিশুটিকে নিয়ে প্রচারিত আরেকটি ভিডিও পোস্ট করতে দেখা যায়। সেখানে মুহাম্মদ ওয়ালিদ আল আসওয়াদকে শিশুটির পারিবারিক অবস্থা সম্পর্কে বর্ণনা করেন৷ তিনি দেখান শিশুটির পরিবার কতটা কঠিন জীবনযাপন করছে। 

এছাড়া শিশুর জন্য সহযোগিতা নিয়ে হাজির হয়েও একটি ভিডিও প্রকাশ করেন মুহাম্মদ ওয়ালিদ আল আসওয়াদ।

অর্থাৎ, আলোচিত শিশুকে কোলে নিয়ে কান্নারত যুবক সিরিয়ান। 

মূলত, সিরিয়ার সেচ্ছাসেবক মুহাম্মদ ওয়ালিদ আল আসওয়াদ গত ১১ জুন তাঁর টিকটকে অ্যাকাউন্টে উত্তর সিরিয়ার এক শিশুকে কোলে নিয়ে তার কান্নারত একটি ভিডিও পোস্ট করেন। সেই ভিডিওটি সম্প্রতি  ফিলিস্তিনের গাজার দৃশ্য দাবিতে ইন্টারনেটে প্রচার করা হচ্ছে। 

সুতরাং, সিরিয়ার এক সেচ্ছাসেবকের শিশু কোলে নিয়ে কান্নারত অবস্থার ভিডিওকে গাজার দৃশ্য দাবিতে প্রচার করা হচ্ছে; যা বিভ্রান্তিকর। 

তথ্যসূত্র 

  • Muhamad Ulid Alasmd- Tiktok Account
  • Muhamad Ulid Alasmd- Tiktok Post (1,2,3)
  • Rumor Scanner’s Own Analysis 

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img