শনিবার, জুলাই 20, 2024
spot_img

মাহিয়া মাহির ভোটের প্রচারের ভিডিওতে মুরাদ হাসানকে জড়িয়ে ভিন্ন অডিও যুক্ত করে প্রচার

সম্প্রতি, রাজশাহী-১ আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী ও চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি জামালপুর-৪ আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী মুরাদ হাসানকে জড়িয়ে শারীরিক সম্পর্কের বিষয়ে মন্তব্য করেছেন দাবিতে একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে। 

ভিডিওটিতে মাহিয়া মাহিকে কথিত কন্ঠে বলতে শোনা যায়, উনি আমার সাথে এত বাজেভাবে সেক্স করছে যে আমি জাস্ট বলে বুঝাতে পারবো না। আমি অসুস্থ। আমি তিনদিন হচ্ছে যে বিছানা থেকে উঠে দাঁড়াতে পারি না। ইভেন আমি এখনো অসুস্থ। আমি আমার রিপোর্ট গুলা আপনাদের কাছে দেখাবো। আমার যে জরায়ুতে ইনফেকশন হয়ে গেছে।… (বানান এবং শব্দচয়ন অপরিবর্তিত)

মাহিয়া মাহির

ফেসবুকে প্রচারিত কিছু ভিডিও পোস্ট দেখুন এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ) এবং এখানে (আর্কাইভ)।

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে দেখা যায়, মাহিয়া মাহি মুরাদ হাসানকে জড়িয়ে শারীরিক সম্পর্কের বিষয়ে সম্প্রতি কোনো মন্তব্য করেননি বরং মাহিয়া মাহি কর্তৃক সময় সংবাদকে দেওয়া নির্বাচনী প্রচারণা কেন্দ্রিক একটি বক্তব্যের ভিডিওর সাথে ভিন্ন ব্যক্তির অডিও যুক্ত করে আলোচিত ভিডিওটি ভিন্ন দাবিতে প্রচার করা হচ্ছে। 

ভিডিও যাচাই 

অনুসন্ধানে গত ৩১ ডিসেম্বর (২০২৩) ‘সময় টিভি’র ইউটিউব চ্যানেলে “ভোটের সব খবর জানতে চোখ রাখুন সময়ে” শীর্ষক ক্যাপশনে এ সংক্রান্ত মূল রিলস ভিডিও খুঁজে পাওয়া যায়। 

উক্ত ভিডিওতে থাকা মাহিয়া মাহির পোশাক, ব্যাকগ্রাউন্ড এবং গলায় ঝুলানো আইডি কার্ডের সাথে আলোচিত ভিডিওটিতে থাকা মাহিয়া মাহির পোশাক, ব্যাকগ্রাউন্ড এবং গলায় ঝুলানো আইডি কার্ডের মিল পরিলক্ষিত হয়। 

Video Comparison: Rumor Scanner 

ভিডিওটিতে মাহিয়া মাহিকে বলতে শোনা যায়, “আসসালামু আলাইকুম! আমি মাহিয়া মাহি। ভোটের খুঁটিনাটি সব খবর জানতে চোখ রাখুন সময় টিভি’র ইউটিউব এবং ফেসবুক চ্যানেলে। আর ভিজিট করুন ইলেকশন ডট সময় নিউজ ডট টিভিতে।”

এছাড়া, সময় টিভি’র ফেসবুক পেজেও একই ভিডিও পাওয়া যায়।

অর্থাৎ, এই ভিডিওতে মাহি মুরাদ হাসানের বিষয়ে কোনো মন্তব্যই করেননি।

অডিও যাচাই 

দেশীয় সংবাদমাধ্যম ডিবিসি নিউজের ইউটিউব চ্যানেলে গত বছরের ২৩ নভেম্বর “পদের লোভ দেখিয়ে শারীরিক সম্পর্কের অভিযোগ” শীর্ষক শিরোনামে প্রকাশিত এক নারীর সংবাদ সম্মেলনের ভিডিও খুঁজে পাওয়া যায়। 

১৩ মিনিট ২৭ সেকেন্ডের সংবাদ সম্মেলনের ভিডিওটি পর্যবেক্ষণ করে দেখা যায়, ৯ মিনিট ৫০ সেকেন্ডের পর থেকে উক্ত নারীর বক্তব্যের সাথে আলোচিত ভিডিওটিতে মাহিয়া মাহির কথিত কন্ঠ ও বক্তব্যের মিল রয়েছে।  

পরবর্তীতে, এ বিষয়ে অনুসন্ধানে চ্যানেল২৪ এর ওয়েবসাইটে গতবছরের ২৪ নভেম্বর “পদের লোভ দেখিয়ে’ তরুণীর সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কের অভিযোগ আ.লীগ নেতার বিরুদ্ধে (ভিডিও)” শীর্ষক শিরোনামে প্রকাশিত একটি সংবাদ খুঁজে পাওয়া যায়।

প্রতিবেদন থেকে জানা যায়, পদ-পদবির লোভ দেখিয়ে তরুণীর সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক করে প্রতারণার অভিযোগ উঠেছে কোনাবাড়ি থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি প্রার্থী আব্দুর রহমান মাস্টারের বিরুদ্ধে। ২৩ নভেম্বর গাজীপুরে সংবাদ সম্মেলনে ওই তরুণী এ অভিযোগ করেন।

একই তথ্যে সংবাদ প্রকাশ করেছে বেশ কয়েকটি গণমাধ্যম। দেখুন- আজকের পত্রিকা, ঢাকা পোস্ট এবং বাংলা ভিশন 

মূলত, ২০২২ সালের নভেম্বরে গাজীপুরের এক আওয়ামী লীগ নেতার বিরুদ্ধে পদ-পদবির লোভ দেখিয়ে শারীরিক সম্পর্কে বাধ্য করার অভিযোগ তোলেন এক নারী। এ সংক্রান্ত সংবাদ সম্মেলনে ভুক্তভোগী নারীর বক্তব্যের কিছু অংশের অডিও কেটে নিয়ে গত ৩১ ডিসেম্বর রাজশাহী-১ আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী ও চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহির ‘সময় টিভি’র প্রমোশন করার একটি ভিডিওর সাথে যুক্ত করে মাহিয়া মাহির বক্তব্য দাবিতে প্রচার করা হচ্ছে।

সুতরাং, মুরাদ হাসানের সাথে শারীরিক সম্পর্কের বিষয়ে মাহিয়া মাহির দেওয়া বর্ণনা দাবিতে প্রচারিত ভিডিওটি এডিটেড বা বিকৃত। 

তথ্যসূত্র

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img