রবিবার, জুলাই 21, 2024
spot_img

ওবায়দুল কাদেরের পা ধরেননি মাহিয়া মাহি, এটি সিনেমার শুটিংয়ের দৃশ্য

সম্প্রতি, আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে রাজশাহী-১ আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী ও চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি আওয়ামী লীগের দলীর প্রার্থী হওয়ার জন্য দলটির সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের পা ধরে কান্না করেছেন শীর্ষক দাবিতে একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচার করা হচ্ছে। 

পা ধরেননি মাহিয়া মাহি

ফেসবুকে প্রচার করা এই সংক্রান্ত একটি ভিডিওই এখন অবধি ২২ লক্ষাধিক মানুষ দেখেছেন, শেয়ার করেছেন প্রায় ২৮০০ মানুষ। 

এটিসহ একই ভিডিও ফেসবুকের আরো কিছু পোস্টে দেখুন এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ)। 

আমরা ভিডিওটি পর্যবেক্ষণ করে দেখেছি, মাহি কর্তৃক পা ধরার দৃশ্যটির পর প্রবাসী ভাইরাল তারকা সেফাত উল্লাহ ওরফে সেফুদা এ বিষয়ে বিষোদগার করছেন।  

এরই সূত্র ধরে সেফুদার ইউটিউব চ্যানেলে গত ০৩ ডিসেম্বর প্রকাশিত এ সংক্রান্ত দাবির মূল ভিডিওটি পাওয়া গেছে। দেখুন এখানে (আর্কাইভ)। 

একই ভিডিও ইউটিউবের আরেক চ্যানেলে দেখুন এখানে (আর্কাইভ)। 

একই ভিডিও টিকটকের একটি অ্যাকাউন্টেও প্রচার হতে দেখেছে রিউমর স্ক্যানার টিম যেখানে এখন অবধি ১৭ লক্ষাধিক বার দেখা হয়েছে।

ভিডিওটি দেখুন এখানে (আর্কাইভ)৷ 

ফ্যাক্টচেক 

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়, মাহিয়া মাহি ওবায়দুল কাদেরের পা ধরে কান্না করেননি এবং আলোচিত দৃশ্যে থাকা ব্যক্তিটি ওবায়দুল কাদেরও নন বরং আনন্দ অশ্রু নামে একটি সিনেমার শুটিংয়ে অভিনেতা শহীদুজ্জামান সেলিমের পা ধরে মাহির কান্নার এই দৃশ্যকে মিথ্যা দাবিতে প্রচার করা হচ্ছে।

এই ভিডিওটির বিষয়ে অনুসন্ধানে ইউটিউবে Quarter BD নামের একটি চ্যানেলে ২০১৯ সালের ০৯ জুলাই প্রকাশিত এ সংক্রান্ত ভিডিওটির সন্ধান মিলেছে৷ 

পূর্ণ ফ্রেমের এই ভিডিওটিতে মাহি এবং ওবায়দুল কাদের দাবিকৃত ব্যক্তিকে একই দৃশ্যে দেখা যায়। এই ভিডিওটি পূর্ণ ফ্রেমের হওয়ায় এখানে উক্ত ব্যক্তির চেহারা দেখা যাচ্ছিল। তিনি ওবায়দুল কাদের নন, ছিলেন অভিনেতা শহীদুজ্জামান সেলিম। দৃশ্যটির ব্যাকগ্রাউন্ডে কোনো ব্যক্তিকে কাট শীর্ষক শব্দ উচ্চারণ করতে শোনা যায়, যা শুটিংয়ের একটি পরিচিত শব্দ। 

Screenshot comparison: Rumor Scanner 

আরো অনুসন্ধান করে সে বছরের ০৬ ডিসেম্বর নিউজ২৪ এর ইউটিউব চ্যানেলে আনন্দ অশ্রু নামক একটি সিনেমার শুটিংয়ে বিষয়ে প্রকাশিত একটি সংবাদ খুঁজে পাওয়া যায়। যাতে সিনেমার নায়িকা মাহিয়া মাহিকে সাক্ষাৎকার দিতে দেখা যায়। এই সাক্ষাৎকার দেওয়ার সময় মাহির পরনে থাকা পোশাকের সাথে আলোচিত ভিডিওতে মাহির পরনে থাকা পোশাকের হুবহু মিল পরিলক্ষিত হয়৷ 

Screenshot comparison: Rumor Scanner 

গণমাধ্যম সূত্রে জানা যাচ্ছে, মোস্তাফিজুর রহমান মানিক পরিচালিত ‘আনন্দ অশ্রু’ নামক একটি সিনেমায় একসঙ্গে অভিনয় করেছেন মাহিয়া মাহি ও শহীদুজ্জামান সেলিম। ২০১৯ সালের শুরুর দিকে এই সিনেমার শুটিং শুরু হয়ে শেষ হয় পরের বছরের জানুয়ারিতে। 

অর্থাৎ, মাহি ওবায়দুল কাদেরের পা ধরেছেন শীর্ষক দাবিতে প্রচারিত ভিডিওটি সাম্প্রতিক সময়ের নয় এবং এটি সিনেমার শুটিংয়ের দৃশ্য।

তাছাড়া, ২০১৯ সালে যখন এই শুটিং হয় সেসময় মাহি রাজনীতির সাথেও সম্পৃক্ত ছিলেন না। বিডিনিউজ২৪ বলছে, ২০২২ সালের অক্টোবরে রাজনীতিতে নাম লেখান মাহি। সে সময় বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোটের কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এবং সংগঠনটির রাজশাহী বিভাগীয় কমিটির আহ্বায়কের দায়িত্ব পান তিনি৷

মূলত, ২০১৯ সালে চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি একটি সিনেমার শুটিংয়ে দৃশ্যে অভিনেতা শহীদুজ্জামান সেলিমের পা ধরেন। উক্ত শুটিংয়ের দৃশ্যকে সম্প্রতি আংশিক ফ্রেমের মাধ্যমে প্রচার করে দাবি করা হচ্ছে, দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন না পেয়ে মাহি কর্তৃক ওবায়দুল কাদেরের পা ধরে কান্না করার দৃশ্য এটি। অথচ, মাহি ২০১৯ সালে রাজনীতিতেই যুক্ত ছিলেন না। 

সুতরাং, সিনেমার শুটিংয়ে দৃশ্যে মাহিয়া মাহি কর্তৃক অভিনেতা শহীদুজ্জামান সেলিমের পা ধরার ঘটনাকে মাহির ওবায়দুল কাদেরের পা ধরে কান্না করার দৃশ্য দাবিতে ইন্টারনেটে প্রচার করা হচ্ছে; যা সম্পূর্ণ মিথ্যা।  

তথ্যসূত্র

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img