সোমবার, জুলাই 22, 2024
spot_img

সংসদ ভাঙা, ওবায়দুল কাদের গ্রেফতার হওয়া ও প্রধানমন্ত্রীর ক্ষমা চাওয়া সংক্রান্ত গুজব ইউটিউবে 

সম্প্রতি, ‘ভেঙ্গে গেলো সংসদ, কাদের গ্রেপ্তার, ক্ষমা চাইলো প্রধানমন্ত্রী’ শীর্ষক শিরোনাম উল্লেখপূর্বক থাম্বনেইলে একটি ভিডিও ইউটিউবে প্রচার করা হয়েছে।

গত ০২ মে ‘News Update 24’ নামে একটি চ্যানেল থেকে প্রচারিত ভিডিওটি দেখুন এখানে (আর্কাইভ)।

এই প্রতিবেদন প্রকাশ হওয়া অবধি ভিডিওটি দেখা হয়েছে ১১ হাজারেরও অধিক বার।

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়, সংসদ ভাঙা, ওবায়দুল কাদের গ্রেফতার হওয়া ও প্রধানমন্ত্রীর ক্ষমা চাওয়া সংক্রান্ত দাবিগুলো সঠিক নয় বরং, অধিক ভিউ পাওয়ার আশায় চটকদার থাম্বনেইল ব্যবহার করে আলোচিত ভিডিওটি তৈরি করা হয়েছে।

অনুসন্ধানের শুরুতে আলোচিত ভিডিওটি পর্যবেক্ষণ করে ভিডিওটিতে এ সংক্রান্ত দাবির বিষয়ে কোনো সংবাদ বা সূত্র উপস্থাপন করা হয়নি। ভিডিওটি’র থাম্বনেইলে প্রচারিত দাবিটির সাথে বিস্তারিত অংশের অসামঞ্জস্যতা রয়েছে। ০৯ মিনিট ৪০ সেকেন্ডের ভিডিওটিতে ভিন্ন ভিন্ন তথ্য উপস্থাপন করা হয়েছে।

ভিডিওর শুরুতে শিরোনামে তিনটি সংবাদের বিষয়ে জানানো হয়। প্রথমটিতে বলা হয়, নিষেধাজ্ঞার ভয়ে শেখ হাসিনা দেশ ছেড়ে পালাচ্ছে, আশ্রয় নেবে বিদেশি গোপন প্রাসাদে। ফাঁস করলো পিনাকী ভট্টাচার্য। দ্বিতীয়টিতে বলা হয়, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ভিসা নিষেধাজ্ঞা শুরু স্টেট ডিপার্টমেন্টের সাত শ্রেণির ব্যাক্তির তালিকা প্রকাশ। তৃতীয়টিতে বলা হয়, ছয় আন্তর্জাতিক সংগঠনের বিবিৃতি, বাংলাদেশের রাজবন্দীদের মুক্তি দিয়ে নতুন নির্বাচনের আহ্বান।

পরবর্তীতে ভিডিওর বিস্তারিত অংশ পর্যবেক্ষণ করে তিনটি সংবাদের কোথাও সংসদ ভাঙা, ওবায়দুল কাদের গ্রেফতার হওয়া ও প্রধানমন্ত্রীর ক্ষমা চাওয়া সংক্রান্ত কোনো তথ্য পাওয়া যায়নি। 

আলোচিত ভিডিওটি প্রচার হওয়ার পূর্বে কিংবা পরে দেশে সংসদ ভেঙে যাওয়া, ওবায়দুল কাদেরের গ্রেপ্তার হওয়া কিংবা সংসদ ভেঙে যাওয়া বা প্রধানমন্ত্রীর ক্ষমা চাওয়া সংক্রান্ত কোনো ঘটনা দেশে ঘটেনি। এছাড়া, সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরকে মে উপজেলা নির্বাচন নিয়ে সাংবাদিকদের সামনে কথা বলতে দেখা যায়। এছাড়া গত ২ মে থেকে ৯ মে পর্যন্ত দ্বাদশ জাতীয় সংসদের দ্বিতীয় অধিবেশন চলে। 

মূলত, News Update 24 নামে একটি ইউটিউব চ্যানেল থেকে প্রচারিত একটি ভিডিওর থাম্বনেইলে ‘ভেঙ্গে গেলো সংসদ, কাদের গ্রেপ্তার, ক্ষমা চাইলো প্রধানমন্ত্রী’ দাবিতে একটি ভিডিও ইউটিউবে প্রচার করা হয়েছে। কিন্তু রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়, দাবিটি সঠিক নয়। প্রকৃতপক্ষে এমন কোনো ঘটনা দেশে ঘটেনি। ৯ মিনিট ৪০ সেকেন্ডের ভিডিওটিতে ভিন্ন ভিন্ন যে তথ্য উপস্থাপন করা হয়েছে তার কোথাও জাতীয় সংসদ ভেঙে যাওয়া, সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের গ্রেপ্তার এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ক্ষমা চাওয়া সংক্রান্ত দাবির স্বপক্ষে কোনো সংবাদ বা সূত্র উপস্থাপন করা হয়নি।  

সুতরাং, ভেঙ্গে গেলো সংসদ, কাদের গ্রেপ্তার, ক্ষমা চাইলো প্রধানমন্ত্রী শীর্ষক দাবিতে একটি ভিডিও ইউটিউবে প্রচার করা হয়েছে; যা সম্পূর্ণ মিথ্যা।

তথ্যসূত্র

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img