ইসরায়েলের সেনাপ্রধান আটকের দাবিটি মিথ্যা, ভিডিওটি এল সালভাদরের

চলমান ফিলিস্তিনের হামাস ও ইসরায়েলের মধ্যকার সংঘাতকে কেন্দ্র করে একটি ভিডিও ইন্টারনেটে ছড়িয়ে পড়েছে। এক ব্যক্তিকে সামরিক পোশাক পরিহিত কিছু ব্যক্তি কর্তৃক আটক করে নিয়ে যাওয়ার এই ভিডিওকে ইসরায়েলের সেনাপ্রধান আটকের দৃশ্য দাবিতে প্রচার করা হচ্ছে। 

সেনাপ্রধান

উক্ত দাবিতে ফেসবুকের কিছু পোস্ট দেখুন এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ)। 

একই দাবিতে ইউটিউবের ভিডিও দেখুন এখানে (আর্কাইভ)।  

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়, ইসরায়েলের সেনাপ্রধান আটকের দাবিটি সঠিক নয় বরং এল সালভাদরে গত সেপ্টেম্বরে এক মেয়েকে হত্যার অভিযোগে আটককৃত দেশটির আর্মড ফোর্সের এক সার্জেন্টের ভিডিও ব্যবহার করে উক্ত দাবিটি প্রচার করা হয়েছে। 

এ বিষয়ে অনুসন্ধানের শুরুতে ভিডিওটির কিছু কী ফ্রেম রিভার্স ইমেজ সার্চ করে ইন্সটাগ্রামে এল সালভাদরের সংবাদমাধ্যম El Informante SV এর অ্যাকাউন্টে গত ২৯ সেপ্টেম্বর প্রকাশিত একটি পোস্ট খুঁজে পেয়েছে রিউমর স্ক্যানার টিম। এই পোস্ট থেকে জানা যাচ্ছে, এল সালভাদরের ন্যাশনাল সিভিল পুলিশ দেশটির আর্মড ফোর্স সার্জন হেক্টর ওভিডিও আলভারাডোসহ আরও পাঁচ সৈন্যকে দেশটির লা লিবারেটেড শহরের কোর্টে পাঠিয়েছে। এদের বিরুদ্ধে ১৩ বছরের এক মেয়েকে ধর্ষণসহ একাধিক অভিযোগ আনা হয়েছে। এই পোস্টে সংযুক্ত আটক এক ব্যক্তির ছবির সাথে আলোচিত দাবিতে ছড়ানো ভিডিওতে থাকা ব্যক্তির দৃশ্যমান মিল লক্ষ্য করা গেছে। 

Screenshot: Instagram 

আমরা এই ব্যক্তির পরিচয় নিশ্চিত হতে ইনস্টাগ্রাম পোস্টে উল্লিখিত সার্জেন্টের নাম ধরে সার্চ করে দেখতে পেয়েছি, ইনিই হেক্টর ওভিডিও আলভারাডো। 

পরবর্তীতে আরো অনুসন্ধান করে এল সালভাদরের ন্যাশনাল সিভিল পুলিশের অফিশিয়াল এক্স (সাবেক টুইটার) অ্যাকাউন্টে গত ২৯ সেপ্টেম্বর প্রকাশিত একটি টুইটে আলভারাডোর আটকের ছবিটি সহ আলোচিত ভিডিওটি খুঁজে পাওয়া যায়। 

Screenshot: X

অর্থাৎ, প্রচারিত ভিডিওটি ইসরায়েলের নয়, এল সালভাদরের। 

রিউমর স্ক্যানার টিম অনুসন্ধানে দেখেছে, ইসরায়েলের আর্মি (আইডিএফ) প্রধান হার্জি হালেভি আটকের কোনো খবর গণমাধ্যমে আসেনি। বরং তার বিভিন্ন কার্যক্রমের বিষয়ে নিয়মিতই দেশটির সংবাদমাধ্যমে খবর প্রকাশিত হচ্ছে। দেখুন এখানে, এখানে। 

মূলত, গত ০৭ অক্টোবর থেকে শুরু হওয়া ফিলিস্তিনের হামাস ও ইসরায়েলের মধ্যকার সংঘাতকে কেন্দ্র করে এক ব্যক্তিকে সামরিক পোশাক পরিহিত কিছু ব্যক্তি কর্তৃক আটক করে নিয়ে যাওয়ার একটি ভিডিও ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দিয়ে দাবি করা হচ্ছে, এটি ইসরায়েলের সেনাপ্রধান আটকের দৃশ্য। কিন্তু রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়, দাবিটি সঠিক নয়। প্রকৃতপক্ষে, ভিডিওতে দেখানো ব্যক্তিটির নাম হেক্টর ওভিডিও আলভারাডো, যিনি এল সালভাদরের আর্মড ফোর্সের একজন সার্জেন্ট। গত সেপ্টেম্বরে এক মেয়েকে হত্যার অভিযোগে তাকে আটকের দৃশ্যকে আলোচিত দাবিটিতে প্রচার করা হয়েছে। তাছাড়া, ইসরায়েলের আর্মি (আইডিএফ) প্রধান আটক হননি। 

প্রসঙ্গত, চলমান ফিলিস্তিন ও ইসরায়েলের সংঘাত ইস্যুতে একাধিক ভুল তথ্য ছড়িয়ে পড়ার প্রেক্ষিতে ইতোমধ্যে একাধিক ফ্যাক্টচেক প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে রিউমর স্ক্যানার ৷

সুতরাং, এল সালভাদরের আর্মড ফোর্সের একজন সার্জেন্টকে আটকের ভিডিওকে ইসরায়েলের সেনাপ্রধান আটকের দাবিতে প্রচার করা হয়েছে; যা সম্পূর্ণ মিথ্যা। 

তথ্যসূত্র 

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img