নিজের ভাইরাল কান্নার ভিডিও চালু হতে দেখে কেন রেগে গেলেন রিয়াজ?

সম্প্রতি, “নিজের অভিনয় দেখে নিজেই রেগে গেলেন চিত্রনায়ক রিয়াজ” শিরোনামে একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে। 

কান্না

ফেসবুকে প্রচারিত এমন কিছু পোস্ট দেখুন এখানে, এখানে, এখানে এবং এখানে। আর্কাইভ দেখুন, এখানে, এখানে, এখানে এবং এখানে।

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়, উক্ত ভিডিও দেখে রিয়াজ সত্যি সত্যি রেগে যাননি বরং এটি ছিলো মেরিল প্রথম আলো পুরস্কার অনুষ্ঠানের রিহার্সেল চলাকালীন রিয়াজ ও ফেরদৌসের মধ্যকার অভিনয়ের অংশ। 

কিওয়ার্ড সার্চ করার মাধ্যমে গত ৪ জুন ‘নায়ক রিয়াজ আহমেদ এবং ফেরদৌস আহমেদ খুব ভালো বন্ধু, রাজনীতিও করেন একসঙ্গে। কিন্তু সম্প্রতি একটি ঘটনার জেরে রিয়াজ রেগে গিয়ে চপাটে চড় কষালেন বন্ধু ফেরদৌসের গালে!’ শিরোনামে প্রকাশিত সেদিনের রিহার্সেলের ৪৮ সেকেন্ড দৈর্ঘ্যের ভিডিওটি খুঁজে পাওয়া যায়। 

যেখানে পুরো ভিডিওটি দেখলে স্পষ্ট তাদের অভিনয় করার বিষয়টি বোঝা যায়। 

৪৮ সেকেন্ডের এই ভিডিওতে দেখা যায়, চলচ্চিত্র সমিতি নির্বাচনের সময় রিয়াজের কান্নার সেই আলোচিত ভিডিওটি ফেরদৌস স্ক্রিনে চালু করলে রিয়াজ রাগান্বিত হয়ে প্রতিক্রিয়া দেখিয়ে মঞ্চে উঠে ফেরদৌসকে একটি চড় মারেন। চড়ের পর ফেরদৌস “মামা তুমি আমাকে মারলে মামা বলে কান্নার ভঙ্গি ও বিলাপ করতে থাকেন”। ভিডিওটি দেখলে বোঝা যায় উক্ত চড়ের সময় রিয়াজের হাত ও ফেরদৌসের মূখের কোনো সংযোগ হয়নি এবং এর পুরোটাই ছিলো অভিনয়ের অংশ।

অনুসন্ধানে অভিনেতা ফেরদৌস আহমেদ এর অফিশিয়াল ফেসবুক পেজে একটি পোস্ট খুঁজে পাওয়া যায়। যেখানে তিনি মেরিল প্রথম আলো পুরস্কার আওয়্যার্ড শো নিয়ে করা একটি পূর্ব প্রস্তুতির রিহার্সেল ভিডিও পোস্ট করেছেন।

উক্ত পোস্টের সূত্র ধরে নিয়ে কিওয়ার্ড সার্চ করার মাধ্যমে, পরবর্তীতে গত ৩ জুন মাছরাঙা টেলিভিশনের ইউটিউব চ্যানেলে “Meril-Prothom Alo Award Show 2021 | মেরিল-প্রথম আলো পুরস্কার-২০২১” শিরোনামে প্রকাশিত মেরিল প্রথম আলো পুরস্কার -২০২১ এর পুরো অনুষ্ঠানের ভিডিওটি খুঁজে পাওয়া যায়। উক্ত ভিডিওর ১ ঘন্টা ১৬ মিনিট ৬ সেকেন্ড সময় থেকে দেখলে সেখানে রিয়াজের ভাইরাল কান্নার ভিডিও নিয়ে রিয়াজ ও ফেরদৌসের মাঝে কথোপকথন পাওয়া যায়।

উক্ত অংশে ফেরদৌস ও রিয়াজের কথোপকথনে বলতে শোনা যায়-

ফেরদৌস – ‘পুরস্কার তো হলো, অনেক পুরস্কার হলো কিন্তু ভাইরাল তো হতে পারলাম না।’ 
রিয়াজ – থাপ্পড় দেয়ার পরেও তো ভাইরাল হতে পারলম না।
ফেরদৌস – কি কি তুমি কেঁদে কেঁদে ভাইরাল হয়ে গেলে আর আজকে এত বড় আয়োজনে তুমি একটুও ভাইরাল হতে পারলে না। 
রিয়াজ– মামা আমার মনে হয় ভাইরাল হওয়াটা একটু ডিফিকাল্ট..।

তাদের এই কথোপকথন দেখে স্পষ্ট বোঝা যায় তারা এই অনুষ্ঠানকে কেন্দ্র করে করা রিহার্সেলের সময় রিয়াজের রেগে যাওয়ার অভিনয়টি মঞ্চায়ন করেন। 

মূলত, গত শিল্পী সমিতির নির্বাচনের সময় রিয়াজের কান্না করার একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যাপাকভাবে ভাইরাল হয়। সেই ভিডিওটি নিয়ে মেরিল প্রথম আলো পুরস্কার অনুষ্ঠানের রিহার্সেলের সময় রিয়াজ ও ফেরদৌস অভিনয় করেন, যেখানে ফেরদৌসের কান্নার ভিডিওটি প্লে করার পর রিয়াজের উত্তেজিত হওয়া, চড় মারা সবকিছুই ছিলো পপরিকল্পিত অভিনয়। এই অনুষ্ঠানের রিহার্সালে অভিনয় করা সেই ভিডিও হতে কাট করে কেবলমাত্র রিয়াজের ভাইরাল কান্নার ভিডিও দেখে রাগ করার বিষয়টি প্রচার করা হচ্ছে। 

সুতরাং, রিয়াজের নিজের ভাইরাল কান্নার ভিডিও দেখে রাগ করার অভিনয়ের ভিডিওটি কিছুটা বিকৃত করে প্রকৃতপক্ষেই রিয়াজ রাগ করেছে হিসেবে প্রচার করা হচ্ছে; যা বিভ্রান্তিকর।

তথ্যসূত্র

Dhakatimes24: https://www.facebook.com/watch/?extid=CL-UNK-UNK-UNK-AN_GK0T-GK1C&v=589665775696627

Ferdous Ahmed FB post: https://fb.watch/dtJwjXn3c-/
Maasranga TV Official: https://www.youtube.com/clip/UgkxnrHa3ZyhiE56hbrhOcOoRQyckmPxBzmZ

RS Team
RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img