বাংলাদেশ বনাম দক্ষিণ আফ্রিকার ম্যাচে আম্পায়ারের সিদ্ধান্ত নিয়ে আইসিসিকে হুমকি দেননি প্রধানমন্ত্রী

চলমান আইসিসি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ২০২৪ এ নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে প্রথম ইনিংসে দক্ষিণ আফ্রিকা বাংলাদেশকে ১১৪ রানের টার্গেট দেয়। দ্বিতীয় ইনিংসে বাংলাদেশ নির্ধারিত ২০ ওভারে ১০৯ রান করে ৪ রানে ম্যাচটি হেরে যায়। ম্যাচের দ্বিতীয় ইনিংসে ১৭তম ওভারের দ্বিতীয় বলে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদকে আম্পায়ার এলবিডব্লিউ দিয়েছিলেন। তবে রিভিউ নিয়ে উইকেট রক্ষা করেন  তিনি। তবে লেগবাইয়ে যে চার হয়েছিল, আম্পায়ার আউট দিয়েছিলেন বলে সেটি ডেড বল হিসেবে গণ্য হয়। এছাড়াও, একই ম্যাচে আম্পায়ার্স কলে তাওহীদ হৃদয়ের আউটের সিদ্ধান্ত নিয়ে প্রশ্ন উঠেছিল।

এরই প্রেক্ষিতে, ‘খেলা আবার হবে, আইসিসিকে প্রধানমন্ত্রীর হুমকি’ শীর্ষক দাবিতে একটি ভিডিও ইউটিউবে ছড়িয়ে পড়েছে।

আইসিসিকে হুমকি

প্রচারিত ভিডিওটি দেখুন- এখানে (আর্কাইভ)

ইউটিউবে ‘DH sports’ অ্যাকাউন্ট থেকে প্রচারিত ভিডিওটি ইতিমধ্যে প্রায় ৫১ হাজার বার দেখা হয়েছে।

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়, বাংলাদেশ বনাম দক্ষিণ আফ্রিকার ম্যাচে আম্পায়ারের সিদ্ধান্ত নিয়ে আইসিসিকে হুমকি দেননি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বরং, ২০২২ সালে ভয়েস অফ আমেরিকাকে দেওয়া প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার একান্ত সাক্ষাৎকারের ভিডিও ক্লিপ নিয়ে আলোচিত দাবিটি প্রচার করা হয়েছে।

অনুসন্ধানের শুরুতে আলোচিত ভিডিওটি পর্যবেক্ষণ করে এতে ভিডিওটির শুরুতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার একটি ভিডিও ক্লিপ দেখতে পাওয়া যায়। পরবর্তীতে ভিডিওটির উপস্থাপক চলমান টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে তাওহীদ রিদয় ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের পারফরমেন্স ও আউটের বিষয় উল্লেখ করে দাবি করেন, “আম্পায়ারের ভুল সিদ্ধান্ত দেখে রীতিমত রেগে আগুন প্রধানমন্ত্রী, তাই তো সংবাদ সম্মেলনে এসে তিনি বলেন, আম্পায়ারের এমন সিদ্ধান্ত আমি মানতে পারছিনা- হৃদয়ের আউটটা কোনোভাবেই হয়নি। মাহমাদুল্লাহ রিয়াদের ৪ রান দেওয়া দরকার ছিল। সব মিলিয়ে আমাদের সাথে দুর্নীতি  করেছে আমি এটা মানতে পারছিনা। এই জন্য আমি কঠিন সিদ্ধান্ত নিব, আইসিসির সাথে কথা বলবো।” 

আলোচিত দাবিটির সত্যতা যাচাইয়ে ভিডিওটির শুরুতে থাকা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ভিডিও ক্লিপটির স্থিরচিত্র রিভার্স ইমেজ সার্চের মাধ্যমে ‘ভয়েস অফ আমেরিকা’ এর বাংলা সংস্করণের ইউটিউব চ্যানেলে ২০২২ সালের ২৭ সেপ্টম্বর ‘ভয়েস অফ আমেরিকাকে দেওয়া বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাক্ষাৎকার (সম্পূর্ন)’ শিরোনামে আপলোড করা ভিডিওর দৃশ্যের সাথে মিল পাওয়া যায়।

Comparison: Rumor Scanner

ভয়েস অব আমেরিকাকে দেওয়া প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উক্ত সাক্ষাৎকারটি সাম্প্রতিক সময়ের নয়, এমনকি সাক্ষাৎকারটিতে ক্রিকেট নিয়ে কোনো কথাও হয়নি। অধিক ভিউ পাওয়ার আশায় চটকদার থাম্বনেইল ও প্রধানমন্ত্রীর পুরোনো ভিডিও ক্লিপ ব্যবহার করে আলোচিত ভিডিওটি তৈরি করা হয়েছে।

মূলত, চলমান টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট বিশ্বকাপে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে ৪ রানে হেরেছে বাংলাদেশ। ম্যাচের ১৭তম ওভারের দ্বিতীয় বলে বল মাহমুদউল্লাহর পায়ে লেগে বাউন্ডারির বাইরে চলে যায়। লেগ বাই হিসেবে চার রান যোগ হওয়ার কথা বাংলাদেশের স্কোরবোর্ডে। কিন্তু আম্পায়ার প্রথমে আউট দেয়াতে নিয়মনুযায়ী সেই রান বাতিল হয়ে যায়। এছাড়াও, উক্ত ম্যাচে আম্পায়ার্স কলে তাওহীদ হৃদয়ের আউটের সিদ্ধান্ত নিয়ে প্রশ্ন উঠেছিল। এরই প্রেক্ষিতে ‘খেলা আবার হবে, আইসিসিকে প্রধানমন্ত্রীর হুমকি’ শীর্ষক দাবিতে একটি ভিডিও ইউটিউবে ছড়িয়ে পড়েছে। তবে, রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে আলোচিত দাবির সপক্ষে কোনো প্রমাণ মেলেনি। কোনো তথ্য প্রমাণ ছাড়াই আলোচিত দাবিটি প্রচার করা হয়েছে। প্রকৃতপক্ষে, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাংলাদেশ ও দক্ষিণ আফ্রিকার ম্যাচটি নিয়ে এমন কোনো মন্তব্য করেননি।

সুতরাং, চলমান টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের বাংলাদেশ ও দক্ষিণ আফ্রিকার ম্যাচে তাওহীদ রিদয়ের আউট ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের ৪ রান নিয়ে আম্পায়ারের দেওয়া সিদ্ধান্ত নিয়ে আইসিসিকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা  হুমকি দিয়েছেন  দাবিতে প্রচারিত তথ্যটি  সম্পূর্ণ মিথ্যা।

তথ্যসূত্র

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img