২৫ মে থেকে ২ জুন পর্যন্ত নওতাপ চলার কোনো তথ্য দেয়নি নাসা

বাংলাদেশসহ এশিয়ার একাধিক দেশে তীব্র তাপপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। এরই প্রেক্ষিতে মার্কিন মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসার বরাত দিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে দাবি করা হচ্ছে, আগামী ২৫ মে থেকে ২ জুন পর্যন্ত চলবে নওতাপ৷ এই নওতাপের নয় দিন গরম সবচেয়ে মারাত্মক আকার ধারণ করবে। কারণ, এইসময় সূর্য রোহিণী নক্ষত্রে প্রবেশ করবে।… এই বছর নওতাপ চলবে আগামী ২৫ মে থেকে ২ জুন পর্যন্ত।

উক্ত দাবিতে ফেসবুকে প্রচারিত কিছু পোস্ট দেখুন এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ) এবং এখানে (আর্কাইভ)। 

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়, ২৫ মে থেকে ২ জুন পর্যন্ত নওতাপ চলার বিষয়ে কোনো তথ্য বা বিজ্ঞপ্তি দেয়নি নাসা বরং ভারতের একটি গণমাধ্যমে জ্যোতিষীদের বরাতে উক্ত তথ্য প্রচারের পর তা নাসা জানিয়েছে দাবিতে প্রচার করা হচ্ছে।   

এ বিষয়ে অনুসন্ধানের শুরুতে ভারতের গণমাধ্যম ‘এই সময়’ এর ওয়েবসাইটে গত ২৪ এপ্রিল তারিখে এ সংক্রান্ত একটি সংবাদ খুঁজে পেয়েছে রিউমর স্ক্যানার। সংবাদটির বিস্তারিত অংশে দাবি করা হয়, “জ্যোতিষীরা জানিয়েছেন যে আগামী ২৫ মে থেকে শুরু হবে নওতাপ৷ এই সময় সূর্য যেন আগুন ছড়াতে শুরু করবে পৃথিবীর বুকে।…… এই বছর নওতাপ চলবে আগামী ২৫ মে থেকে ২ জুন পর্যন্ত।” হুবহু এই লেখাগুলোই ফেসবুকে প্রচার হতে দেখেছি আমরা, তবে মূল সংবাদে উক্ত তথ্য জ্যোতিষীদের বরাতে বলা হলেও আলোচিত দাবি সংক্রান্ত পোস্টে তথ্যগুলো নাসা জানিয়েছে বলে দাবি করা হয়।

Comparison : Rumor Scanner

আমরা বিভিন্ন কিওয়ার্ড এবং ফেসবুকের এডভান্স মনিটরিং টুল ব্যবহার করে দেখেছি, এই সময় এর প্রতিবেদন প্রকাশের (২৪ এপ্রিল) পরদিন ফেসবুকে প্রতিবেদনের আলোচিত অংশটি (জ্যোতিষীর বরাত) হুবহু কপি পেস্ট হয়ে প্রচার হলেও এর পরদিন অর্থাৎ অন্তত ২৬ এপ্রিল থেকে আলোচিত দাবিতে পোস্ট ছড়িয়ে পড়ে।  

এ বিষয়ে অধিকতর নিশ্চিতের লক্ষ্যে নাসার ওয়েবসাইটে একাধিক কিওয়ার্ড সার্চ করেও উক্ত দাবির পক্ষে কোনো তথ্যের উল্লেখ পাইনি। নাসা থেকে রোহিণী নক্ষত্র কিংবা মৃগশিরা নক্ষত্র সম্পর্কে কোনো তথ্য প্রচার সংক্রান্ত কোনো সংবাদও প্রকাশ হতে দেখা যায়নি। 

তবে, বাংলাদেশের আবহাওয়া অধিদফতরের বরাতে সময় টিভি দাবি করছে, “এপ্রিলই শেষ নয়, এবারের মে মাস হবে আরও উত্তপ্ত। সর্বোচ্চ তাপমাত্রা হতে পারে ৪৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস।”

মূলত, বাংলাদেশসহ এশিয়ার একাধিক দেশে তীব্র তাপপ্রবাহ বয়ে যাওয়ার প্রেক্ষিতে নাসার বরাত দিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সম্প্রতি দাবি করা হচ্ছে, আগামী ২৫ মে থেকে ২ জুন পর্যন্ত চলবে নওতাপ৷ এই নওতাপের নয় দিন গরম সবচেয়ে মারাত্মক আকার ধারণ করবে। কারণ, এইসময় সূর্য রোহিণী নক্ষত্রে প্রবেশ করবে।… এই বছর নওতাপ চলবে আগামী ২৫ মে থেকে ২ জুন পর্যন্ত। কিন্তু রিউমর স্ক্যানারের অনুসন্ধানে জানা যায়, নাসা এমন কোনো তথ্যই দেয়নি। প্রকৃতপক্ষে, ভারতের গণমাধ্যম এই সময় এর এক প্রতিবেদনে জ্যোতিষীদের বরাতে উক্ত তথ্য প্রচারের পর তা নাসা জানিয়েছে দাবিতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচার করা হচ্ছে। 

সুতরাং, ২৫ মে থেকে ২ জুন পর্যন্ত নাসা নওতাপ চলবে বলে জানিয়েছে শীর্ষক একটি দাবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচার করা হচ্ছে; যা সম্পূর্ণ মিথ্যা।  

তথ্যসূত্র

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img