বুধবার, জুন 26, 2024
spot_img

ঢাকায় ভূমিকম্পের মিথ্যা দাবিতে সম্পাদিত ভিডিও প্রচার

সম্প্রতি “এইমাত্র ঢাকা শহরে ভুমিকম্প হলো” শীর্ষক দাবিতে চারটি ভিন্ন ভিন্ন ভিডিও ক্ষুদে ভিডিও শেয়ারিং সাইট টিকটকের একটি একাউন্ট থেকে প্রচার করা হয়েছে।

  • ২০২৩ সালের ১৮ই ফেব্রুয়ারি প্রচারিত দুটি ভিডিও দেখুন এখানে এবং এখানে
  • ২০২৩ সালের ২২শে ফেব্রুয়ারি প্রচারিত একটি ভিডিও দেখুন এখানে 
  • ২০২৩ সালের ২৫শে ফেব্রুয়ারি প্রচারিত একটি ভিডিও দেখুন এখানে
Screenshot: Tiktok/mdnoyonkhan567

এখানে উল্লেখ্য যে প্রতিটি ভিডিওতে-ই “এইমাত্র” শব্দ ব্যবহার করা হয়েছে। ফলে দাবি অনুযায়ী ঐ ভিডিওগুলো আপ্লোড এর তারিখের দিন (ভুমিকম্প হওয়ার দিন-দাবি) রেকর্ড বা ধারণ করা বোঝানো হচ্ছে। এছাড়াও, প্রতিটি ভিডিওতে একজন নারীর চিৎকারের সাউন্ড ব্যবহার করা হয়েছে (ভূমিকম্প দেখে ভয় পাওয়া বোঝাতে)।

2 days ago post. Screenshot: Tiktok/mdnoyonkhan567

একই একাউন্ট থেকে আরো একটি আলাদা ভিডিও আপ্লোড করা হয়েছে একই দাবিতে। স্ক্রিনশট দেখুন নিচে।

5 days ago post. Screenshot: Tiktok/mdnoyonkhan567

অর্থাৎ, দাবি হলো গত ১৮, ২২ (5 days ago) ও ২৫শে ফেব্রুয়ারি (2 days ago) ঢাকায় ভূমিকম্প হয়েছে। [স্ক্রিনশটগুলো ২৭শে ফেব্রুয়ারি নেওয়া]

Screenshot: Tiktok/ Collage of mdnoyonkhan567 posts

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে দেখা যায়, ১৮,২২ ও ২৫শে ফেব্রুয়ারি ঢাকায় ভুমিকম্প হয়নি এবং ভিডিওগুলো কোনো ভূমিকম্পের সময়েও ধারণ করা নয় বরং ফেব্রুয়ারিতে ঢাকায় ভুমিকম্পের ঘটনা ঘটেনি এবং ভিডিওগুলো টিকটকের ফিল্টার ব্যবহার করে সম্পাদনা করা।

ভিডিও পর্যবেক্ষণ

ক্ষুদে ভিডিও শেয়ারিং সাইট টিকটকে @mdnoyonkhan567 ইউজারনেম সম্বলিত একাউন্টটি থেকেই ভিন্ন ভিন্ন তারিখে আপ্লোডকৃত ভিডিওগুলো পর্যবেক্ষণ করে দুটি অসামঞ্জস্যতা পাওয়া যায়।

  • একটি ভিডিওতে Wave ফিল্টার (ঢেউ এর মতো) এর ন্যায় একটি ফিল্টারের ব্যবহার দেখা গেছে
  • প্রতিটি ভিডিওতে একই অডিও ব্যবহার করা হয়েছে

ভিডিও বিশ্লেষণ

প্রথমত ভূমিকম্পের ভিডিও হলে কাঁপা কাঁপা (কম্পিত, নড়বড়ে) দৃশ্য হবে, যেটাকে ইংরেজিতে বলা হয় Shaky. কিন্তু প্রযুক্তির সহায়তা ব্যতীত কোনো স্থির স্থাপনার ক্ষেত্রে ঢেউ এর মত দৃশ্যধারণ সম্ভব নয় (wave filter)।

এছাড়াও এই ভিডিওগুলোতে Shake বা কম্পন সম্বলিত ফিল্টার ব্যবহার করে এডিট করে আপ্লোড করা হয়েছে। এই প্রতিবেদনের আগে আমরাও Shake ফিল্টার ব্যবহার করে পরীক্ষা করেছি। এই ফিল্টারের মাধ্যমে যে কোনো স্থির ভিডিওতে এরকম কম্পন যুক্ত করে নেওয়ার বিষয়ের সত্যতা যাচাই করে সত্যতা পাওয়া গেছে।

এছাড়াও, ভিডিওগুলো যদি সত্যিকারের ভূমিকম্পের সময়ে ধারণ করা হয়ে থাকে তাহলে আলাদা আলাদা জায়গায় ধারণ করা ভিডিওতে একই নারীর একই ধরণের চিৎকার (একই অডিও) শোনা যাওয়ার কথা নয়। অর্থাৎ, সবগুলো ভিডিওতে সম্পাদনা করে একটিই অডিও ব্যবহার করা হয়েছে। 

টিকটকের “অরিজিনাল সাউন্ড” অপশন (ফিচার) থেকে দেখা যায় ভিডিওগুলোতে @jiyabulaalm ইউজারনেম সম্বলিত একাউন্ট থেকে অডিওটি আলোচিত ভিডিওগুলোতে আপ্লোডের সময়ে যুক্ত করা হয়েছে।

Screenshot: Tiktok/mdnoyonkhan567

এই বছরের ফেব্রুয়ারিতে কি ঢাকায় ভূমিকম্প হয়েছিল

কি-ওয়ার্ড সার্চ পদ্ধতিসহ গুগল এডভান্স সার্চ পদ্ধতি ব্যবহার করে ইন্টারনেটে এবং গণমাধ্যমে এই বছরের ফেব্রুয়ারিতে ঢাকায় ভূমিকম্প হওয়ার কোনো তথ্য কিংবা সংবাদ পাওয়া যায়নি।

পাশাপাশি, দেশীয় সংবাদমাধ্যম প্রথম আলোতে সর্বশেষ হিসেবে গত ০৫ডিসেম্বর ২০২২ (প্রায় তিনমাস আগে) ঢাকায় ভূমিকম্পের খবর খুঁজে পাওয়া যায়। 

অর্থাৎ, এই বছরের ফেব্রুয়ারিতে ঢাকায় ভূমিকম্প হয়নি।

Screenshot: photomalo

মূলত, তুরস্ক ও সিরিয়ায় মারাত্মক ভূমিকম্পে ব্যপক ক্ষয়ক্ষতির পরে দ্বিতীয় আরো একবার ভূমিকম্প আঘাত হানে তুরস্ক-সিরিয়াতে। পরবর্তীতে জাপান, তাজিকিস্তান-চীন সীমান্তে ভূমিকম্প এবং দেশে গত ১৬ই ফেব্রুয়ারি সিলেটেও ভূমিকম্প অনুভূত হয়েছে। এসকল ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে দেশে এবং বিদেশে ভূমিকম্পের তথ্য, ছবি এবং ভিডিও দাবিতে পুরাতন কিংবা অপ্রাসঙ্গিক কন্টেন্ট বিভিন্নভাবে প্রচার করা হচ্ছে। এই সম্পাদিত ভিডিওগুলোও এইকভাবে ঢাকায় ভূমিকম্প দাবিতে টিকটকে প্রচার করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, দেশীয় গণমাধ্যম “সময় টেলিভিশন” এর এক প্রতিবেদন অনুযায়ী, “গত শনিবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) বিকেল ৪টা ৩৯ মিনিটে কক্সবাজারে ভূ-কম্পন অনুভূত হয় বলে নিশ্চিত করেছেন আবহাওয়া অধিদফতর কক্সবাজার আঞ্চলিক কার্যালয়ের সহকারী আবহাওয়াবিদ আব্দুর রহমান। 

প্রসঙ্গত, ভূমিকম্প সম্পর্কিত বিভিন্ন বিষয়ে প্রচারিত ভুল তথ্য নিয়ে ইতোপূর্বে বেশ কয়েকটি ফ্যাক্ট-চেকিং প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে রিউমর স্ক্যানার।

সুতরাং, টিকটকে সম্পাদিত ভিডিও প্রচার করে দাবি করা হচ্ছে “গত ১৮,২২ ও ২৫শে ফেব্রুয়ারি ঢাকায় ভূমিকম্প হয়েছে”; যা সম্পূর্ণ মিথ্যা।

তথ্যসূত্র

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img