গোপনে কে আসে আপনার ফেসবুক প্রোফাইলে, তা কি জানা সম্ভব?

সম্প্রতি “জেনে নিন গোপনে কে আসে আপনার ফেসবুক প্রোফাইলে” শীর্ষক একটি সংবাদ বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রচারিত হওয়ার মাধ্যমে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে।

বাংলাদেশের গণমাধ্যমগুলোর মধ্যে এ বিষয়টি নিয়ে প্রথমদিকে “জানতে চান কে দেখল আপনার ফেসবুক প্রোফাইল?” শীর্ষক শিরোনামে ২০১৬ সালের ৮ মে প্রথম আলোর অনলাইন সংস্করণে সংবাদ প্রকাশিত হয়। এরপর বিভিন্ন সময়ে দেশের বিভিন্ন গণমাধ্যম এ তথ্যটি প্রচার করে আসছে।

উক্ত দাবিতে সংবাদ প্রচার করে দেশীয় মূলধারার গণমাধ্যম প্রথম আলো, যুগান্তর, সময় টিভি, বাংলা ট্রিবিউন, বাংলাদেশ প্রতিদিন, পূর্বপশ্চিম, দ্য ডেইলি ক্যাম্পাস এবং ঢাকা পোস্ট

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়, গোপনে কে ফেসবুক ব্যবহারকারীর প্রোফাইল পরিদর্শন করছে তা জানা সম্ভব নয় বরং এ ধরণের কোনো সুবিধা ফেসবুক ব্যবহারকারীদের দেয় না।

অনুসন্ধানে, Facebook Help Center এ ফেসবুকের প্রোফাইল পরিদর্শনকারীর তালিকা দেখার বিষয়টিকে ফেসবুক কর্তৃক সরাসরি নাকচ করার একটি বক্তব্য পাওয়া যায়।

সেখানে ফেসবুক জানায়, “ফেসবুক ব্যবহারকারীদের তাদের প্রোফাইল কে দেখছে তা ট্র্যাক করতে দেয় না। থার্ডপার্টি অ্যাপগুলিও এই কার্যকারিতা প্রদান করতে অক্ষম৷ আপনি যদি এমন একটি অ্যাপ দেখেন যা এই ক্ষমতার অফার করার দাবি করে, তাহলে অনুগ্রহ করে অ্যাপটি রিপোর্ট করুন।

Screenshot from Facebook Help Centre

অর্থাৎ, কখনও Bug বা ত্রুটিজনিত কারণে দেখা গেলে ফেসবুক তা রিপোর্ট করতে অনুরোধ জানিয়েছে। এর মানে ফেসবুক প্রাইভেসি রক্ষার্থে সঙ্গত কারণেই এই সুবিধা প্রদান করবে না।

সংবাদ প্রতিবেদনগুলোতে প্রোফাইল পরিদর্শনকারীর তালিকা বের করার কৌশলে যা বলা হয়;

যেমন ঢাকা পোস্ট উল্লেখ করেছে,

“ফেসবুকে আপনার সব আপডেট হয়তো অন্যের ওয়ালে নাও দেখাতে পারে। কিন্তু আপনি কি করছেন তার আপডেট তো জানার ইচ্ছা অন্যের থাকতেই পারে। সে জন্য অনেক ফেসবুক ব্যবহারকারী মাঝে মধ্যেই আপনার প্রোফাইল ভিজিট করেন। তবে বন্ধু তালিকার বাইরের কেউ আপনার সর্বশেষ ছবি, স্ট্যাটাস কিংবা অ্যাকাউন্টে নজর রাখছে কিনা বুঝবেন কীভাবে?
কয়েকটি সাধারণ ধাপ অনুসরণ করলে তা সহজে বের করে নিতে পারবেন।”

ধাপগুলোতে তারা যা উল্লেখ করেছে তা হলো-

“ফেসবুকে লগ ইন করে হোমপেজের যেকোন এক জায়গায় মাউসের ডান বাটন ক্লিক করে View Page Source এ ক্লিক করুন, এরপর Ctrl + F চেপে Buddy_Id লিখে সার্চ দিন। বাডি আইডির পাশে ১৫ অঙ্কের কোড পাওয়া যাবে এখন আইডি বের করার জন্য facebook.com সাইটে গিয়ে ফেসবুক ডট কমের পাশে স্ল্যাশ (/) চিহ্ন দিয়ে ১৫ অঙ্কের কোডটি পেস্ট করে কী বোর্ডের এন্টার বাটন চাপুন। তাহলে আপনার প্রোফাইল ভিজিট করা ফেসবুকে প্রোফাইলগুলো দেখতে পারবেন। সাধারণত যেসব আইডি থেকে সবচেয়ে বেশিবার আপনার প্রোফাইল ভিজিট করা হয় সেটিই সর্বপ্রথমে দেখাবে।”

কিন্তু অনুসন্ধানে জানা যায়, Buddy ID llist আর View Page source সম্পূর্ণ আলাদা দুটি বিষয়। এর সাথে প্রোফাইল পরিদর্শনকারীর তালিকা বের করার কোনো সম্পর্ক নেই এবং তা সম্ভবও নয়।

Screenshot from washington.edu website

View Page source কি?

আমরা সাধারণ যখন একটা ওয়েব পেজ দেখি তখন আমরা সেটার একটা ভিজুয়াল রুপ দেখি। এই ভিজুয়াল রুপ তৈরিতে অসংখ্য কোড ব্যবহার হয়েছে। মূলত সোর্স কোড হলো কোন ওয়েবপেজের পিছনের প্রোগ্রামিং। একটা ওয়েবসাইটের গঠন, কালার, ফন্ট, কি কি আছে সবগুলোর পিছনেই কোডিং আছে। View Page source এর মাধ্যমে আমরা যে ওয়েব পেজটি দেখি তার HTML source code দেখতে পারি। একটা পেজে যত তথ্য আছে, যত বিষয় আছে তার পিছনের যে প্রোগ্রামিং তা আমরা দেখতে পারি।

এই ভিউ পেজ সোর্স পেজে কে আপনার প্রোফাইল ভিউ করেছে তা থাকা সম্ভব নয়। কারণ এই বিষয়টি ওয়েব পেজের অংশই নয় বা এটি ওয়েব পেজে উপস্থিত নেই। তাই ভিউ পেজ সোর্স এর মাধ্যমে প্রোফাইলে কে আসছে তা দেখা সম্ভব নয়। এর মাধ্যমে পেজে উপস্থিত তথ্যগুলোর সোর্স কোড জানা যাবে।

বাডি আইডি কিভাবে কাজ করে?

ফেসবুক প্রোফাইলে গোপনে কে আসে জানার কথিত পদ্ধতি যাচাই করার জন্য বিস্তারিত অনুসন্ধান করে রিউমর স্ক্যানারের প্রাযুক্তিক গবেষণা দল। কথিত পদ্ধতিটি একাধিক ফেসবুক আইডিতে প্রয়োগ করে বিশ্লেষণ করা হয়।

প্রথমত, ২৮০ ফ্রেন্ডের একটি ফেসবুক আইডিতে buddy_id সার্চে ৫২ টি ফেসবুক আইডির কোড আসে এবং যে আইডির কোডগুলো আসছে তারা সবাই ফেসবুক ফ্রেন্ডলিস্টের।

দ্বিতীয়ত, ৮৩৮  ফ্রেন্ডের একটি ফেসবুক আইডিতে buddy_id সার্চে ৫০ টি কোড আসে এবং এবারও যে আইডির কোডগুলো আসছে সব ফেসবুক ফ্রেন্ডলিস্টের।

তৃতীয়ত, ৩৪  ফ্রেন্ডের একটি ফেসবুক আইডিতে buddy_id সার্চে ৫০ টি ফেসবুক আইডির কোড আসে এবং এবারও পূর্বের ন্যায় সার্চে আসা সকল আইডির  কোডগুলো ফেসবুক ফ্রেন্ডলিস্টের।  লক্ষ্যনীয় যে, এবার ফেসবুক আইডিটির ফ্রেন্ড সংখ্যা ৩৪ হলেও buddy_id সার্চে ৫০ টি কোড এসেছে। এর কারণ অনুসন্ধান করলে দেখা যায় একই আইডির কোড একাধিক বার আসছে।

চতুর্থত, সদ্য খোলা একটি ফেসবুক আইডিতে শূণ্য ফ্রেন্ড থাকা অবস্থায় buddy_id সার্চে একটিও ফেসবুক আইডির কোড আসেনা। ভিন্ন একটি আইডি থেকে শূণ্য ফ্রেন্ডের উক্ত আইডি ভিজিট করার পর পুনরায়  buddy_id সার্চ করলেও ফলাফল শূণ্যই থাকছে। পরবর্তীতে, শূণ্য ফ্রেন্ডের উক্ত আইডির ফ্রেন্ডলিস্টে একটি ফ্রেন্ড যুক্ত করে buddy_id সার্চ করলে দেখা যায় এবার একটি ফেসবুক আইডির কোড আসছে এবং সেটি ফ্রেন্ডলিস্টে থাকা একমাত্র আইডিটির কোড।

রিউমর স্ক্যানের অনুসন্ধান “buddy_id” মূলত কি তা জানা গেলেও, এটা স্পষ্ট যে buddy_id সার্চে ফ্রেন্ড লিস্টের বাহিরের কোনো আইডি আসেনা এবং buddy_id সার্চ করে ফেসবুক প্রোফাইলে গোপনে কে আসে সেটিও জানা যায়না।

মূলত, দেশীয় গণমাধ্যমে “জেনে নিন গোপনে কে আসে আপনার ফেসবুক প্রোফাইলে” শীর্ষক শিরোনামে ফেসবুক প্রোফাইল কে ভিজিট করছে সেটি দেখার একটি কথিত পদ্ধতি দীর্ঘদিন ধরে নিয়মিত প্রচার হয়ে আসছে। রিউমর স্ক্যানারের প্রাযুক্তিক গবেষণা দল কথিত সেই পদ্ধতিটি ভিন্ন ভিন্ন ফেসবুক আইডিতে প্রয়োগ করে বিশ্লেষণের মাধ্যমে দেখতে পায় এই পদ্ধতিটি কার্যকর নয়। এছাড়া, প্রোফাইল পরিদর্শনকারীর তালিকা দেখা সম্পর্কে ফেসবুক কর্তৃকপক্ষ তাদের হেল্প সেন্টারে জানিয়েছে, “ফেসবুক ব্যবহারকারীদের তাদের প্রোফাইল কে দেখছে তা ট্র্যাক করতে দেয় না। থার্ডপার্টি অ্যাপগুলিও এই কার্যকারিতা প্রদান করতে অক্ষম৷ আপনি যদি এমন একটি অ্যাপ দেখেন যা এই ক্ষমতার অফার করার দাবি করে, তাহলে অনুগ্রহ করে অ্যাপটি রিপোর্ট করুন।”

সুতরাং, ফেসবুক ব্যবহারকারীর প্রোফাইলে গোপনে কে ভিজিট করে তা জানার জন্য গণমাধ্যমগুলোর প্রতিবেদনে উল্লিখিত পদ্ধতিটি মিথ্যা।

তথ্যসূত্র

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img