নেইমারের পরবর্তী বিশ্বকাপ খেলার ঘোষণা দেওয়ার দাবিটি বিভ্রান্তিকর

সম্প্রতি, “পরের বিশ্বকাপ খেলার ঘোষণা  নেইমারের! তিনি ২০২৬ বিশ্বকাপ পর্যন্ত খেলবেন।” শীর্ষক একটি তথ্য ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে।

ফেসবুকে প্রচারিত এমন কিছু পোস্ট দেখুন এখানে, এখানে, এখানে, এখানে, এখানে, এখানে, এখানে এবং এখানে।
পোস্টগুলোর আর্কাইভ ভার্সন দেখুন এখানে, এখানে, এখানে, এখানে, এখানে, এখানে, এখানে এবং এখানে।

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়, এখন পর্যন্ত পরবর্তী বিশ্বকাপ খেলার কোনো ঘোষণা দেননি নেইমার বরং তিনি এ ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানাতে সময় নিয়েছেন। 

অনুসন্ধানে জানা যায়, গত ৯ ডিসেম্বর চলমান কাতার বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনালে মুখোমুখি হয় ব্রাজিল ও ক্রোয়েশিয়া। এই ম্যাচ টাইব্রেকারে হেরে বিশ্বকাপ থেকে বিদায় নেয় ব্রাজিল। ম্যাচ হারার পরই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে, দলটির সবচেয়ে বড় তারকা নেইমার পরবর্তী অর্থাৎ ২০২৬ সালের বিশ্বকাপে অংশ নেওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন। 

নেইমার কি এমন কোনো ঘোষণা দিয়েছেন? 

কি-ওয়ার্ড সার্চ পদ্ধতিতে ব্রাজিলিয়ান তারকা ফুটবলার নেইমারের ভেরিফাইড ফেসবুক অ্যাকাউন্টে উক্ত দাবির বিষয়ে কোনো তথ্য পাওয়া যায়নি। 

তবে নেইমারের ভেরিফাইড ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টে গত ১০ ডিসেম্বর প্রকাশিত একটি পোস্ট খুঁজে পাওয়া যায়। 

নেইমার তার পোস্টে কোয়ার্টার ফাইনালে পরাজয়ের বিষয়ে লিখেছেন, “আমি মনস্তাত্ত্বিকভাবে ধ্বংস হয়ে গিয়েছি, এটি অবশ্যই পরাজয় যা সবচেয়ে বেশি আঘাত করেছিল, যা আমাকে ১০ মিনিটের জন্য পক্ষাঘাতগ্রস্ত করে তুলেছিল এবং তারপরে আমি অবিরাম কান্নায় ভেঙে পড়েছিলাম। এটা দুর্ভাগ্যবশত, একটি দীর্ঘ সময়ের জন্য আঘাত করা যাচ্ছে। আমরা শেষ অবধি লড়াই করেছি এবং আমি আমার সতীর্থদের জন্য গর্বিত কারণ সেখানে প্রতিশ্রুতি বা উৎসর্গের অভাব ছিল না।”

দীর্ঘ পোস্টে নেইমার কোয়ার্টার ফাইনালে পরাজয়ের বিষয়ে বললেও পরবর্তী বিশ্বকাপ খেলবেন কিনা সে বিষয়ে কোনো মন্তব্য করেননি।

ছড়িয়ে পড়া পোস্টগুলোর সূত্র কী জানাচ্ছে?

ছড়িয়ে পড়া পোস্টগুলোতে আলোচিত তথ্যটির সূত্র হিসেবে ‘The Sun’ এর নাম উল্লেখ করা হয়েছে।

পরবর্তীতে যুক্তরাজ্যের ‘The Sun’ পত্রিকার ওয়েবসাইটে গত ১০ ডিসেম্বর “NEY MORE? Heartbroken Brazil star Neymar reveals he may never play in World Cup again as Pele begs him to carry on in tribute” শিরোনামে প্রকাশিত একটি প্রতিবেদন খুঁজে পাওয়া যায়।

দ্য সান লিখেছে, ”ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে বিশ্বকাপে ব্রাজিলের হেরে যাওয়ার পর নেইমার তার আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ার নিয়ে সন্দেহ প্রকাশ করেছেন।”

‘দ্য সান’ তাদের প্রতিবেদনে কোয়ার্টার ফাইনাল শেষে পরবর্তী বিশ্বকাপ খেলার বিষয়ে দেওয়া নেইমারের মন্তব্য উল্লেখ করেছে, “সত্যি বলছি, আমি জানি না। আমি মনে করি এই মুহূর্তে এ বিষয়ে কথা বলা কঠিন। হয়তো আমি সরাসরি চিন্তা করছি না।”

“এটা বলতে গেলে আমি নিজেই তাড়াহুড়ো করব, কিন্তু আমিও কিছুর নিশ্চয়তা দিচ্ছি না। দেখা যাক সামনে কী হয়।”

“আমি এটি নিয়ে ভাবতে সময় নিতে চাই, আমি নিজের জন্য কী চাই তা নিয়ে ভাবতে চাই। আমি ব্রাজিলের সাথে খেলার দরজা বন্ধ করব না, আবার আমি শতভাগ আশ্বাসও দিচ্ছি না যে আমি ফিরে আসব।”

“আমার এবং জাতীয় দলের জন্য কোনটি সঠিক হবে সে বিষয়ে আরও কিছুটা ভাবতে হবে আমাকে।”

আন্তর্জাতিক একাধিক গণমাধ্যমেও (Reuters, ESPN, Al Jazeera) নেইমারের একই বক্তব্য প্রকাশ করেছে। 

অর্থাৎ, নেইমার পরবর্তী বিশ্বকাপ খেলবেন এমন কোনো বক্তব্য বা ঘোষণা এই প্রতিবেদন প্রকাশ হওয়া পর্যন্ত দেননি। 

অনিশ্চয়তার কথা বলেছিলেন কাতার বিশ্বকাপের শুরুর আগেই

লিওনেল মেসি–ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর মতো এটা তারও শেষ বিশ্বকাপ, এমন কথা  বেশ কয়েকবারই বলেছেন নেইমার। চলমান কাতার বিশ্বকাপ শুরুর পূর্বে ব্রাজিলের সংবাদমাধ্যম ‘Globo’ কে একটি সাক্ষাৎকার দিয়েছিলেন ৩০ বছর বয়সী এই ব্রাজিল তারকা। সাক্ষাৎকারে তিনি জানান, “আমি শেষ বিশ্বকাপ (কাতার বিশ্বকাপ) মনে করেই খেলব। আপনাকে আমি সামনের বিশ্বকাপ খেলার নিশ্চয়তা দিতে পারব না। সত্যিই জানি না পরেরটা খেলব কি না। আমি শেষ মনে করেই খেলব।”

৩৪ বছর বয়সে আরেকটি বিশ্বকাপ খেলবেন কি না, তা অনেক কিছুর ওপর নির্ভর করছে জানিয়ে পিএসজি ফরোয়ার্ড বলেছেন, “আরেকটি বিশ্বকাপ খেলতেও পারি, আবার না–ও পারি। এটা অনেক কিছুর ওপর নির্ভর করছে। হতে পারে কোচ বদলে গেল, সেই কোচ আমাকে পছন্দ করলেন না।”

মূলত, লিওনেল মেসি–ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর মতো এটা তারও শেষ বিশ্বকাপ, এমন কথা ঘনিষ্ঠজনদের বেশ কয়েকবার বলেছেন নেইমার। গতকাল কাতার বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনালে ক্রোয়েশিয়ার কাছে পরাজয়ের পর দলটির এই তারকা খেলোয়াড় ব্রজিলের হয়ে ভবিষ্যতে খেলা প্রসঙ্গে জানান, “আমি এটি নিয়ে ভাবতে সময় নিতে চাই, আমি নিজের জন্য কী চাই তা নিয়ে ভাবতে চাই। আমি ব্রাজিলের সাথে খেলার দরজা বন্ধ করব না, আবার আমি শতভাগ আশ্বাসও দিচ্ছি না যে আমি ফিরে আসব।” কিন্তু তার এই মন্তব্যকে কেন্দ্র করে তিনি পরের বিশ্বকাপ খেলার ঘোষণা দিয়েছেন দাবিতে ফেসবুকে প্রচার করা হচ্ছে। 

প্রসঙ্গত, চলমান কাতার ফুটবল বিশ্বকাপকে কেন্দ্র করে একাধিক গুজব ছড়িয়ে পড়ার প্রেক্ষিতে একাধিক ফ্যাক্টচেক প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে রিউমর স্ক্যানার।

সুতরাং, চলমান কাতার বিশ্বকাপে কোয়ার্টার ফাইনাল থেকে বিদায় নেওয়ার পর পরবর্তী বিশ্বকাপ খেলা প্রসঙ্গে সিদ্ধান্ত নিতে নেইমারের আরো কিছুটা সময় চাওয়ার বক্তব্যকে তিনি পরবর্তী বিশ্বকাপ খেলার ঘোষণা দিয়েছেন দাবিতে প্রচার করা হচ্ছে; যা বিভ্রান্তিকর।

তথ্যসূত্র

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img