শুক্রবার, জুলাই 26, 2024
spot_img

বিরাট কোহলি লাইভে এসে সাকিব-তামিমের দ্বন্দ্ব মিটিয়ে দেননি, এই ভিডিওটি সম্পাদিত 

সম্প্রতি, চলমান বিপিএলে রংপুর রাইডার্সের ক্রিকেটার সাকিব আল হাসান ও ফরচুন বরিশালের ক্রিকেটার তামিম ইকবালের মধ্যকার বিপিএল কান্ড এবং তাদের মধ্যকার পুরোনো দ্বন্দ্ব নিরসনে লাইভে এসে ভারতের ক্রিকেটার বিরাট কোহলি মিটমাট করে দিয়েছেন দাবিতে ইন্টারনেটে একটি ভিডিও প্রচার করা হয়েছে।

ফেসবুকে প্রচারিত এমন ভিডিও দেখুন এখানে (আর্কাইভ)।

ইউটিউবে প্রচারিত এমন ভিডিও দেখুন এখানে (আর্কাইভ)।

টিকটকে প্রচারিত এমন ভিডিও দেখুন এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ), এখানে (আর্কাইভ)

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে দেখা যায়, তামিম ও সাকিবের মধ্যকার দ্বন্দ্ব নিরসনে তামিম বিরাট কোহলিকে নিয়ে কোনো লাইভে অংশ নেননি বরং, তামিম ও  কোহলির পুরোনো একটি লাইভ আলোচনার ভিডিওর সাথে সাকিবের ভিন্ন ঘটনার একটি ভিডিওর কিছু অংশ ডিজিটাল প্রযুক্তির সহায়তায় যুক্ত করে আলোচিত লাইভ ভিডিও দাবিতে প্রচারিত ভিডিওটি তৈরি করা হয়েছে। 

অনুসন্ধানের শুরুতে আলোচিত দাবিতে প্রচারিত ভিডিওটি পর্যবেক্ষণ করে ভিডিওটিতে রিবাট কোহলিকে ‘আমার মনে হয় সামনে সবাই বেশ পরিবর্তন হয়ে যাবে সব জায়গায়। তাই এই যে পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে এর সাথেই আমাদের মানিয়ে চলতে হবে। আমার মনে হয় সবার একটি স্লো প্রসেস রয়েছে…এটা জরুরীও বটে। কারণ পরিস্থিতিটা এমন যে আমরা কোনো কিছুকে হালকাভাবে নিতে পারছি না। কিন্তু ধীরে ধীরে আমাদের যে কেসের রেসিও আছে ডাবল হবার সেটারও উন্নতি হচ্ছে।’ শীর্ষক কথা বলতে শোনা যায়। এরপরই ভিডিওটির উপস্থাপক দাবি করেন, লাইভ ভিডিওতে বিরাট কোহলি উল্লেখিত কথাগুলোর পরই ‘সাকিব তামিম বাংলাদেশের ক্রিকেটের মাথা। তাদের কাছের শিখবে জুনিয়র ক্রিকেটাররা। এছাড়া সাকিব তামিমের এই কাণ্ডটি ঘটেছে মূলত আবেগের বশে। তামিমকে আউট করেই অদ্ভুত সেলিব্রেশন করেছিল সাকিব। যেটা যেকোনো বলারই কোনো ব্যাটসম্যানকে আউট করে করতে পারে। এরপর সাকিবের আউট হওয়ার পরই নিজের আবেগকে কন্ট্রোল করতে না পেরে তামিম ইকবালও সেলিব্রেশন করেছে। এতে কোনো দোষের কিছু নেই উইকেট পড়লে যে কেউই সেলিব্রেশন করতে পারে। কিন্তু মাঝখানে তাদের মধ্যে এমন ঝামেলা যা ব্যথীত করে পুরো বাংলাদেশের ক্রিকেট টিমকে। তাই আমি সাকিব-তামিমকে বলবো, যা হওয়ার হয়ে গিয়েছে। এখানেই সবকিছু ক্লোজ করুন। সাকিব-তামিম মিলে গেলেই বাংলাদেশের ক্রিকেটের উন্নতি হবে।’ শীর্ষক মন্তব্য করেছেন।   

আলোচিত দাবিগুলোর সত্যতা যাচাইয়ে প্রচারিত লাইভ ভিডিওটিতে ব্যবহৃত ভিডিও ক্লিপগুলোর বিষয়ে অনুসন্ধানে  তামিম ইকবালের ইউটিউব চ্যানেলে ২০২০ সালের ১৮ মে #TI28 Tamim Iqbal Live with Virat Kohli শীর্ষক শিরোনামে প্রচারিত একটি ভিডিও খুঁজে পাওয়া যায়। 

উক্ত ভিডিওটি পর্যালোচনা করে দেখা যায়, এটির সাথে আলোচিত ভিডিওর বিরাট কোহলি এবং তামিম ইকবালের ফুটেজের বেশকিছু অংশের মিল রয়েছে। মূলত এই ভিডিওটির বিভিন্ন অংশ কাট করে আলোচিত ভিডিওটির বিরাট কোহলি ও তামিমের অংশটুকু তৈরি করা হয়েছে। 

Video Comparison by Rumor Scanner

এছাড়াও ভিডিওটির কোনো অংশেই সাকিব আল হাসানকে তাদের সাথে যুক্ত হতে দেখা যায় না। পাশাপাশি ভিডিওটিতে বিরাট কোহলি তামিম ইকবাল ও সাকিব আল হাসানের দ্বন্দ্বের বিষয় নিয়ে নয় বরং করোনা পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা করেন।

তাছাড়াও জানা যায়, উক্ত ভিডিওটি প্রচারের সময় তামিম তার ইউটিউব চ্যানেলে দেশি-বিদেশি ক্রিকেটারদের নিয়ে প্রায়ই লাইভ ভিডিও প্রচার করতেন। যেখানে তিনি তাদের সাথে ক্রিকেট নিয়ে নানা ধরনের আলোচনা করতেন। 

পরবর্তীতে আলোচিত ভিডিওতে দেখানো সাকিব আল হাসানের ক্লিপটি অনুসন্ধানে রিভার্স ইমেজ সার্চের মাধ্যমে Shakib Al Hasan এর ভেরিফাইড ফেসবুক পেজে ২০২৩ সালের ২৫ ফেব্রুয়ারি Stay tuned to find out on February 27th, 7:30PM. #CaptureYourPassion #Reno8T #OPPO শীর্ষক শিরোনামে প্রচারিত একটি ভিডিও খুঁজে পাওয়া যায়।

ভিডিওটি পর্যালোচনা করে দেখা যায়, আলোচিত ভিডিওতে সাকিব আল হাসানের দেখানো ফুটেজের সাথে উক্ত ভিডিওর মিল পাওয়া যায়।

Video Comparison by Rumor Scanner

এছাড়াও জানা যায়, ভিডিওটি মূলত বাংলাদেশে মোবাইল কোম্পানি OPPO এর নতুন মোবাইল ফোন OPPO Reno8T রিলিজ হতে নিয়ে তৈরি করা হয়েছিল। যার সাথে আলোচিত দাবির কোনো সম্পর্ক নেই।

পরবর্তীতে বিরাট কোহলি বাস্তবে কখনো সাকিব ও তামিমকে নিয়ে আলোচিত দাবিটির বিষয়ে কোনো আলোচনা করেছেন কিনা তা জানতে প্রাসঙ্গিক নানা কি-ওয়ার্ড সার্চের মাধ্যমেও কোনো গণমাধ্যম বা নির্ভরযোগ্য সূত্রে কোনো তথ্য পাওয়া যায়নি। 

মূলত, চলমান বিপিএলের ৩৮তম ম্যাচে রংপুর রাইডার্সের বিপরীতে মাঠে নামে ফরচুন বরিশাল। সাকিব আল হাসান ও তামিম ইকবালের চলমান দ্বন্দ্বের মাঝেই একে অপরের বিপক্ষে জয় লাভের আশায় মাঠে নামে এই ‍দুই তারকা ক্রিকেটার। ম্যাচটিতে সাকিব-তামিমের আউট হওয়ার পর দুজনের প্রতিক্রিয়ায় দ্বন্দ্বের ছাপটি দর্শকদের কাছে আরও স্পষ্ট হয়ে উঠে। এ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম থেকে শুরু করে গণমাধ্যম সব জায়গাতেই শুরু হয় আলোচনা। এরই প্রেক্ষিতে সম্প্রতি, সাকিব ও তামিমের বিপিএল কাণ্ড এবং তাদের মধ্যকার দ্বন্দ্ব নিরসনে লাইভে এসে বিরাট কোহলি মিটমাট করে দিয়েছেন দাবিতে ইন্টারনেটে একটি ভিডিও প্রচার করা হয়েছে। তবে রিউমর স্ক্যানারের অনুসন্ধানে দেখা যায়, বিরাট কোহলি তামিম ইকবাল ও সাকিব আল হাসানকে নিয়ে কোনো লাইভ আলোচনা করেননি। প্রকৃতপক্ষে, তাদের তিনজনের ভিন্ন ভিন্ন ঘটনার দুটি লাইভ ভিডিওর কিছু ক্লিপ ডিজিটাল প্রযুক্তির সহায়তায় সম্পাদনার মাধ্যমে যুক্ত করে আলোচিত দাবিটি প্রচার করা হয়েছে।

সুতরাং, লাইভে এসে বিরাট কোহলি  সাকিব আল হাসান ও তামিম ইকবালের বিপিএল কাণ্ড ও তাদের মধ্যকার দ্বন্দ্ব মিটমাট করে দিয়েছেন দাবিতে ইন্টারনেটে প্রচারিত ভিডিওটি এডিটেড বা সম্পাদিত। 

তথ্যসূত্র

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img