৮ থেকে ১০ ডিসেম্বর পর্যন্ত যমুনা সেতুর মেরামতের কারণে সকল প্রকার গাড়ি চলাচল বন্ধ থাকার দাবিটি মিথ্যা

সম্প্রতি “নতুন নাটক !! আগামীকাল ভোর ৬ টা থেকে ১০ তারিখ সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত যমুনা সেতুর মেরামতের কাজ চলবে.. সকল গাড়ি চলাচল বন্ধ!” শীর্ষক শিরোনামসহ বিভিন্ন শিরোনামে সমজাতীয় একটি তথ্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে।

ফেসবুকে প্রচারিত এমন কিছু পোস্ট দেখুন এখানে, এখানে, এখানে, এখানে, এখানে, এখানে এবং এখানে
পোস্টগুলোর আর্কাইভ ভার্সন দেখুন এখানে, এখানে, এখানে, এখানে, এখানে, এখানে এবং এখানে

যা দাবি করা হচ্ছে

“আগামীকাল (০৮ ডিসেম্বর) ভোর ৬ টা থেকে ১০ তারিখ সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত যমুনা সেতুর মেরামতের কাজ চলবে.. সকল গাড়ি চলাচল বন্ধ!”। অর্থাৎ, ৮ ডিসেম্বর ভোর ৬ টা থেকে ১০ ডিসেম্বর সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত যমুনা সেতুর মেরামতের কাজ চলবে, তাই সকল গাড়ি চলাচল বন্ধ থাকবে।

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে দেখা যায়, ৮ ডিসেম্বর ভোর ছয়টা থেকে ১০ ডিসেম্বর সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত যমুনা সেতুর মেরামতের কাজ চলার কারণে সকল প্রকার যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকার তথ্যটি সঠিক নয় বরং কোনো প্রকার গ্রহণযোগ্য তথ্যসূত্র ব্যতীত উক্ত দাবিটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে প্রচার করা হচ্ছে।

গুজবের সূত্রপাত

অনুসন্ধানে ৭ ডিসেম্বর রাত ৯টা ১৪ মিনিটে ‘মশিউর রহমান’ নামের একটি ফেসবুক প্রোফাইল থেকে প্রথম পোস্টটি খুঁজে পাওয়া যায়।

তবে, এই গুজবের ধারণাটা প্রায় আরও দেড়মাস আগে গত ২৬ অক্টোবর “Bhuiyan Shihab” নামের একটি প্রোফাইল থেকে একটি ধারণাভিত্তিক পোস্ট পাওয়া যায়। যেখানে উল্লেখ করা হয়েছে, “আইডিয়া, এবার পরিবহন ধর্মঘট না দিয়ে মেরামতের নিমিত্তে যমুনা সেতু কয়েকদিনের জন্য বন্ধ করে দেয়া যেতে পারে।” তিনি গত ২৯ অক্টোবর বিএনপি’র রংপুরের সমাবেশের আগে এই ধারণা ফেসবুকে শেয়ার করেন।

অনুসন্ধান

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে দেশীয় কোনো সংবাদমাধ্যমে এ জাতীয় কোনো সংবাদ খুঁজে পাওয়া যায়নি।

এছাড়া, উক্ত বিষয়ে সেতু কর্তৃপক্ষের কোনো নোটিশও পাওয়া যায়নি।

পাশাপাশি, আজ (০৮ ডিসেম্বর বিকেল ৩টার দিকে) বাসে করে যমুনা সেতু (বর্তমান নাম: বঙ্গবন্ধু সেতু) হয়ে পার হওয়া এক যাত্রীর থেকে ছবি এবং ভিডিও সংগ্রহ করেছে রিউমর স্ক্যানার টিম। সেখানে দেখা গেছে যমুনা সেতুতে যানবাহন চলাচল বন্ধ নেই।

সংগৃহীত ছবি
 সংগৃহীত ছবির সাথে ‘গুগল ম্যাপস’ এ যমুনা সেতু থেকে ধারণ করা থ্রিডি স্ট্রিট ভিউ এর তুলনা।

‘গুগল ম্যাপস’ এ যমুনা সেতু থেকে ধারণ করা থ্রিডি স্ট্রিট ভিউ দেখুন এখানে। এছাড়াও আজকে যমুনা সেতু দিয়ে পারাপারের সময় ধারণকৃত ভিডিওটি দেখুন এখানে

গুগল ম্যাপে লাইভ ট্রাফিক চালু অবস্থায় যমুনা সেতু। ম্যাপের ট্রাফিক অনুযায়ী যানবাহন এবং মানুষের পারাপার হয়েছে (আপডেটগুলোর স্ক্রিনশট নেয়া হয়েছে বিকেল ৫টা ৩ মিনিটে)
গুগল ম্যাপে লাইভ ট্রাফিক বন্ধ করা অবস্থায় যমুনা সেতু

যা বলেছে বঙ্গবন্ধু সেতু সাইট অফিস (ভূয়াপুর, টাংগাইল) কর্তৃপক্ষ

বঙ্গবন্ধু সেতু সাইট অফিস (ভূয়াপুর, টাংগাইল) কর্তৃপক্ষ রিউমর স্ক্যানারকে জানায় যে, “বর্তমানে সেতুর মেরামতের কোনো কাজ চলছেনা এবং যান চলাচলও বন্ধ নেই।”

মূলত, সারাদেশে বিএনপি’র সমাবেশের অংশ হিসেবে রাজধানী ঢাকায় আগামী ১০ ডিসেম্বর গণসমাবেশের ডাক দিয়েছে বিরোধী দলটি। এর আগে আয়োজিত অধিকাংশ সমাবেশের আগে পরিবহন ধর্মঘট ছিল। আগামী ১০ তারিখের এই সমাবেশকে ঘিরে দলটির নেতা-কর্মীরা বিভিন্ন মাধ্যমে দাবি করছেন যে সরকার বিভিন্ন উপায়ে সমাবেশ যেন সফল না হয় তার পরিকল্পনা করছে। সেই দাবির সাথে মিলিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভিত্তিহীনভাবে দাবি করা হচ্ছে যে “ডিসেম্বর ভোর ৬ টা থেকে ১০ ডিসেম্বর সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত যমুনা সেতুর মেরামতের কাজ চলবে..তাই সকল গাড়ি চলাচল বন্ধ থাকবে”।

উল্লেখ্য, বঙ্গবন্ধু সেতুটি যমুনা বহুমুখী সেতু বা যমুনা সেতু নামেও পরিচিত। গত ১২ই অক্টোবর চট্টগ্রাম থেকে বিভাগীয় গণসমাবেশ কর্মসূচী শুরু করে বিএনপি, যা শেষ হবে ঢাকায় ১০ই ডিসেম্বর সমাবেশের মধ্য দিয়ে। জ্বালানি তেল ও নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের অস্বাভাবিক মূল্যবৃদ্ধি, দলীয় কর্মসূচিতে গুলি করে নেতা-কর্মীদের হত্যার প্রতিবাদ, নির্বাচনকালীন নির্দলীয় সরকারের দাবিতে বিভাগীয় (দলের সাংগঠনিক বিভাগ) পর্যায়ে এই সমাবেশের কর্মসূচি শুরু করে বিএনপি। এছাড়াও, যমুনা নদীতে দেশের সবচেয়ে বড় রেলসেতুর কাজ চলমান। ২০২০ সালের ২৯ নভেম্বর ১৬ হাজার ৭৮০ কোটি টাকা ব্যয়ে বঙ্গবন্ধু রেল সেতুটির নির্মাণ কাজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

প্রসঙ্গত, আগামী ১০ ডিসেম্বর বিরোধী দল বিএনপি রাজধানী ঢাকায় গণসমাবেশ আয়োজন করবে এবং এই সমাবেশকে ঘিরে “সরকার ঢাকায় ১০ ডিসেম্বরের বিএনপির বিভাগীয় সমাবেশ নষ্ট করার চেষ্টা করছে’ বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। বাংলাদেশের রাজনীতি সম্পর্কিত বিভিন্ন তথ্য ও ছবি নিয়ে ইতোমধ্যে বেশ কয়েকটি ফ্যাক্টচেক প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে রিউমর স্ক্যানার।

সুতরাং, কোনো প্রকার গ্রহণযোগ্য তথ্যসূত্র ব্যতীত “০৮ ডিসেম্বর ভোর ৬ টা থেকে ১০ ডিসেম্বর সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত যমুনা সেতুর মেরামতের কাজ চলবে..তাই সকল গাড়ি চলাচল বন্ধ থাকবে” শীর্ষক দাবিটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে প্রচার করা হয়েছে; যা সম্পূর্ণ মিথ্যা।

তথ্যসূত্র

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img