বুধবার, জুলাই 24, 2024
spot_img

দেশের ৩০টি ব্যাংককে দেউলিয়া ঘোষণা করার দাবিটি বানোয়াট

সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের ডিপার্টমেন্ট অফ জাস্টিস বা বিচার বিভাগের আমন্ত্রণে আন্তর্জাতিক ব্যাংক সম্মেলনসহ অফশোর ব্যাংকিং হিসাবের আওতায় প্রবাসীদের দেশের বিভিন্ন ব্যাংকে ডলার জমা রাখার জন্য উদ্বুদ্ধ করতে আয়োজিত একটি অনুষ্ঠানে অংশ নিতে যুক্তরাষ্ট্র গেছেন দেশের সরকারি-বেসরকারি প্রায় ৩০টি ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি)। 

এরই প্রেক্ষিতে সম্প্রতি, ‘এইমাত্র ৩০ ব্যাংক দেউলিয়া ঘোষণা করলো ফেঁসে গেলেন প্রধানমন্ত্রী ও ছেলে জয়’ শীর্ষক শিরোনাম থাম্বনেইলে উল্লেখপূর্বক একটি ভিডিও ইউটিউবে প্রচার করা হয়েছে। 

৩০টি ব্যাংক

Media Cell 24 নামে একটি চ্যানেল থেকে প্রচারিত ভিডিওটি দেখুন এখানে (আর্কাইভ)।

এই প্রতিবেদন প্রকাশ হওয়া অবধি ভিডিওটি দেখা হয়েছে ১ হাজার ৮ শত বারেরও অধিক বার।

ফ্যাক্টচেক

রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়, ৩০টি ব্যাংককে দেউলিয়া ঘোষণা করার তথ্যটি বানোয়াট। অধিক ভিউ পাওয়ার আশায় চটকদার থাম্বনেইল ব্যবহার করে আলোচিত ভিডিওটি তৈরি করা হয়েছে।

অনুসন্ধানের শুরুতে আলোচিত ভিডিওটি পর্যবেক্ষণ করে ভিডিওটিতে আলোচিত দাবির সাথে প্রাসঙ্গিক কোনো তথ্যেরও উল্লেখ পাওয়া যায়নি। অর্থাৎ ভিডিওটি’র থাম্বনেইলে প্রচারিত দাবিটির সাথে বিস্তারিত অংশের অসামঞ্জস্যতা রয়েছে।

০৮ মিনিট ২৩ সেকেন্ডের ভিডিওর শুরুর ১০ সেকেন্ড দৈনিক মানবজমিনের একটি ভিডিও প্রতিবেদনের কিছু অংশ দেখানো হয়। এরপর ভিডিওর ১১ সেকেন্ড থেকে ১৫ সেকেন্ড পর্যন্ত দেশ টিভির একটি ভিডিও প্রতিবেদনের কিছু অংশ যুক্ত করা হয়। এরপই এটিএন নিউজ’র সংবাদের কিছু অংশ দেখানো হয়েছে। পরবর্তীতে, ডিডব্লিউ বাংলার টিম লিড খালেদ মহিউদ্দিনের একটি ছবি যুক্ত করে পূর্বের সংবাদের কিছু ফুটেজ যুক্ত করা হয়। 

Screenshot: YouTube 

এরপর ভিডিওজুড়ে সিনিয়র সাংবাদিক মোস্তফা ফিরোজ এর বিশ্লেষণধর্মী দুটি (, ) ভিডিওর ফুটেজ যুক্ত করা হয়। তবে পুরো ভিডিওতে দাবি সংক্রান্ত ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও সজীব ওয়াজেদ জয়ের সম্পৃক্ততা নিয়ে কোনো তথ্য প্রমাণ উপস্থাপন করা হয়নি।

Screenshot: YouTube 

এছাড়া, ৩০টি ব্যাংককে দেউলিয়া ঘোষণা করা হয়েছে কিনা তা অধিকতর নিশ্চিতে প্রাসঙ্গিক কি অনুসন্ধানে গণমাধ্যম কিংবা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে কোনো বিশ্বস্ত সূত্রে এ জাতীয় কোনো সংবাদ বা তথ্য পাওয়া যায়নি।

মূলত, সাম্প্রতিক সময়ে Media Cell 24 নামের একটি ইউটিউব চ্যানেল থেকে প্রকাশিত এক ভিডিওতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং তার তথ্য ও প্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়ের নাম ও ছবি জড়িয়ে দেশের ৩০টি ব্যাংককে দেউলিয়া ঘোষণা করা হয়েছে বলে দাবি করা হয়। কিন্তু রিউমর স্ক্যানার টিমের অনুসন্ধানে জানা যায়, দাবিটি বানোয়াট। দেশে ৩০টি ব্যাংক দেউলিয়া ঘোষণা করার কোনো ঘটনা ঘটেনি। প্রকৃতপক্ষে, ভিন্ন ভিন্ন ঘটনার অপ্রাসঙ্গিক ফুটেজ ব্যবহার করে আলোচিত দাবিটি প্রচার করা হয়েছে।

সুতরাং, দেশের ৩০টি ব্যাংককে দেউলিয়া ঘোষণা করা হয়েছে দাবিতে প্রচারিত তথ্যটি সম্পূর্ণ মিথ্যা।

তথ্যসূত্র

RS Team
Rumor Scanner Fact-Check Team
- Advertisment -spot_img
spot_img
spot_img